হবিগঞ্জে দ্রুত বিস্তার ঘটছে করোনার; এ অবস্থায় জেলাজুড়ে করোনা আতঙ্ক

সুশীল চন্দ্র দাস, হবিগঞ্জ জেলা প্রতিনিধি: হবিগঞ্জে দ্রুত বিস্তার ঘটছে করোনার। এ অবস্থায় জেলাজুড়ে এখন শুধু করোনা আতঙ্ক। এর মধ্যে চিকিৎসক, নার্স ও জেলা প্রশাসনের কর্মকর্তারা আক্রান্ত হওয়ায় উদ্বকণ্ঠায় রয়েছেন অনেক মানুষ। আক্রান্ত হওয়া চিকিৎসক, নার্স ও কর্মকর্তা কর্মচারি সংস্পর্শে আসা লোকজনও রয়েছেন উৎকণ্ঠায়। জেলা সিভিল সার্জন অফিস সূত্রে জানা যায়- এ পর্যন্ত হবিগঞ্জ থেকে ১ হাজার ৬১৩টি নমুনা সংগ্রহ করে করোনা শনাক্তকরণ ল্যাবে পাঠানো হয়েছে।

এর মধ্যে কিছু নমুনা সিলেট ওসমানি মেডিকেল কলেজের ল্যাবে এবং কিছু নমুনা ঢাকা পাঠানো হয়েছে। নমুনাগুলোর মধ্যে ৮৪৬টির রিপোর্ট জেলা স্বাস্থ্য বিভাগের কাছে পৌঁছেছে। তাদের মধ্যে ৪৮ জনের শরীরে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়। তারা সবাই হবিগঞ্জ সদর আধুনিক হাসপাতালের আইসোলেশনে চিকিৎসাধিন রয়েছেন। করোনা শনাক্ত হওয়া ৪৮ জনের মধ্যে ২২ জনই জেলা স্বাস্থ্য বিভাগ ও জেলা প্রশাসনের কর্মকর্তা কর্মচারি। এদিকে, এখনও হবিগঞ্জের ৭৬৭ জনের নমুনা রিপোর্ট পাওয়া যায়নি।

কি আছে তাদের ভাগ্যে? রিপোর্টগুলো নিয়ে স্বাস্থ্য বিভাগ ও সাধারণ মানুষ যেমন উৎকন্ঠায় রয়েছেন তেমনি ভয়ে ও আতঙ্কে কাবু হয়ে আছেন করোনা সন্দেহভজন ৭৬৭ জন। জেলা সিভিল সার্জন ডা. কে এম মুস্তাফিজুর রহমান বলেন- এখনও যাদের রিপোর্ট পাওয়া যায়নি তাদের মধ্যে ১১ জন হবিগঞ্জ সদর আধুনিক হাসপাতালে প্রতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টাইনে এবং বাকি সবাই হোম কোয়ারেন্টাইনে রয়েছেন। তবে চিকিৎসক ও নার্স আক্রান্ত হওয়ার কারণে সংক্রামণ রোধে হবিগঞ্জ সদর আধুনিক হাসপাতাল লকডাউন ও লাখাই ও চুনারুঘাট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে।