সৈয়দপুরে স্কুল ছাত্রী ধর্ষনের চেষ্টা, যুবক গ্রেফতার

সাদিকুল ইসলাম সাদিক, নীলফামারী জেলা প্রতিনিধি:য়দপুরের স্বনামধন্য এক শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের অষ্টম শ্রেনীর ছাত্রী (১৩)কে ধর্ষন চেষ্টার অভিযোগে মামুন (২৭) নামে যুবককে আটক করেছে থানা পুলিশ।

বুধবার এ অভিযোগে ওই ছাত্রীর মা বাদী হয়ে আটক যুবককে প্রধান ও একমাত্র আসামী করে সৈয়দপুর থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। অভিযোগে জানা যায়, সৈয়দপুর শহরের পৌর ৬ নং ওয়ার্ডের নয়াটোলা এলাকায় ভাড়া বাড়িতে অটোচালক স্বামী ও দুই সন্তানকে নিয়ে মায়ের সাথে বসবাস করে মেয়েটি।

বুধাবার (৩০ সেপ্টেম্বর) সকাল ৯ টায় বিভিন্ন প্রয়োজনে বাড়ির বাইরে চলে সকলে। তাদের বাড়ির পাশে বসবাস করত নুর ইসলামের ছেলে সোহেল তার স্ত্রী সন্তান ও বিমাতা ছোট ভাই মামুন। প্রতিবেশি স্কুল ছাত্রী তাদের ঘরে একা রয়েছে এমন খবর পেয়ে ঘরে জোর পুর্বক প্রবেশ করে মামুন। সেখানে ঘরের দড়জা বন্ধ করে স্কুল ছাত্রীর শ্লীলতা হানী ঘটায়।

এ সময় প্রতিবেশিরা স্কুল ছাত্রীর চিতকারে ছুটে এসে ঘরের দড়জা ভেঙ্গে তাকে উদ্ধার করে এবং ধর্ষনের চেষ্টাকারী যুবককে আটক করেন। পরে তার বিমাতা ভাই স্থানিয় থানা পুলিশে খবর দিয়ে সোপর্দ করা হয়। পরে এ ঘটনায় বাদী হয়ে স্কুল ছাত্রীর মা বাদী হয়ে নারী শিশু নির্যাতন দমন আইন ২০০০ এ আটক যুকককে একমাত্র প্রধান আসামী করে ৪৬/ এর খ ধারায় মামলা দায়ের করেন।

যার মামলা নং-২৬। এ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে সৈয়দপুর থানার অফিসার্স ইনচার্জ আবুল হাসনাত খান বলেন, ধর্ষনকারী যেই হোক কোন ছাড় নয়। পরে ওই দিন বিকালে সৈয়দপুর পুলিশ প্রশাসন আটক মামুনকে ওই মামলায় গ্রেফতার দেখিয়ে নীলফামারী জেলা কারাগারে প্রেরন করেন।