রাণীনগরে যুবলীগ নেতাকে “মিথ্যা” মামলায় হয়রানির অভিযোগ

সুকুমল কুমার প্রামানিক, রাণীনগর (নওগাঁ) প্রতিনিধি: নওগাঁর রাণীনগর উপজেলা যুবলীগের কার্যনির্বাহী পরিষদের সদস্য মোতাহার হোসেনের বিরুদ্ধে “মিথ্যা” মামলা দিয়ে হয়রানি করা হচ্ছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। উপজেলার সিংগারপাড়া গ্রামের আবুল হোসেনের ছেলে রতন পূর্বশত্রুতার জ্বের ধরে মোতাহারের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামালা দিয়ে তাকে হয়রানি করছেন বলে শনিবার এক লিখিত অভিযোগের মাধ্যমে জানিয়েছেন মোতাহার।

রাণীনগর উপজেলার সিংগারপাড়া গ্রামের আনোয়ার হোসেনের ছেলে যুবলীগ নেতা মোতাহার হোসেন সাংবাদিকদের নিকট লিখিত অভিযোগে জানান, সিংগারপাড়া গ্রামের আবুল হোসেনের ছেলে রতন আলী তার শরিকান ভাইদের সাথে জমাজমি নিয়ে বিরোধ চলছিল। এমতবস্থায় গত ৫ জুলাই রতনের নিজ ব্যবসা প্রতিষ্ঠান কাটরাশইন বাজারে ভাইদের মধ্যে কথা কাটাকাটি হয়। এ সময় রতন তার দোকানের টাকা বের করে প্রায় ৫০-৬০ মানুষের সামনেই রাস্তায় ছিটিয়ে ফেলে এবং দোকানের আসবাবপত্র নিজেরাই ভাংচুর করে। এ সময় যুবলীগ নেতা মোতাহার হোসেন বগুড়াতে অবস্থান করলেও পরের দিন মোতাহারসহ কয়েক জনকে আসামি করে রাণীনগর থানায় লুটপাট এবং ভাংচুরের মামলা দায়ের করেন রতন।

মোতাহার জানান, তাকে হয়রানি করতে এবং সমাজে হেও করতেই পূর্বশত্রুতার জ্বের ধরেই তার বিরুদ্ধে “মিথ্যা” মামলা দিয়ে হয়রানি করা হচ্ছে। তিনি মামলার সুষ্ঠু তদন্তের দাবি জানিয়েছেন।

এ ব্যাপারে রাণীনগর থানার ওসি মো: জহুরুল হক বলেন, ওই ঘটনায় উভয় পক্ষ পাল্টা-পাল্টি মামলা করেছেন। মামলা দুইটি সুষ্ঠু তদন্ত করা হচ্ছে এবং তদন্ত শেষে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।