রমজানে নিয়মিত বাজার মনিটরিং স্বস্তিতে বারহাট্টা উপজেলার মানুষ

মামুন কৌশিক, বারহাট্টা প্রতিনিধি: গত ২৫ এপ্রিল শুরু হয় পবিত্র রমজান।রমজান উপলক্ষ্যে সারা দেশের মতও বারহাট্টা উপজেলাতেও বাড়তে থাকে বিভিন্ন নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিস পত্রের দাম। কিন্তুু পরিস্থিতি বিবেচনা এবং বিভিন্ন এলাকার বাজার থেকে আসা অভিযোগের ভিত্তিতে নিয়মিত বাজার মনিটরিং করছেন বারহাট্টা উপজেলা নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট (সহকারী কমিশনার ভূমি) সাদিয়া উম্মুল বানীন।

তিনি রোজা শুরু হওয়ার পর বারহাট্টা উপজেলার গোপালপুর বাজার, বাউসি বাজার ও ফকিরের বাজারে বাজার মনিটরিং করে ১৫ জন ব্যবসায়ীকে মেয়াদ উত্তীর্ণ জিনিসপত্র, মূল্য তালিকা না থাকা ও বেশি মূল্যে জিনিস পত্র বিক্রি করার অভিযোগে প্রায় ৩৯৩০০ টাকা জরিমানা করেন। এতে কিছুটা হলেও স্বস্তি এসেছে বাজারের ক্রেতা দের মধ্যে।

বারহাট্টা উপজেলা সদরের বসবাস করা কয়েকজন ক্রেতা ও সাধারণ মানুষ জানান যে, আগে বাজারে গেলে ব্যবসায়ীরা বলত যে এক পয়সাও কম নাই। নিলে নিবেন না নিলে নাই। এখন এমনটা বলে না তবে আমাদের চাওয়া থাকবে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সহ অন্যান প্রশাসনের কর্মকর্তারা যেন সব সময় নজর রাখেন বাজারের প্রতি।

এ বিষয়ে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সাদিয়া উম্মুল বানীন বলেন যে, আমাদের পক্ষ থেকে সর্বোচ্চ চেষ্টা চলছে রোজা উপলক্ষ্যে বাজারকে নিয়ন্ত্রণ করার জন্য।তবে আপনারা কেউই মূল্য তালিকা ব্যাতিত কোন জিনিস পত্র কিনবেন না। আমাদের নিয়মিত বাজার মনিটিরিং অব্যাহত থাকবে। সবাই করোনা সংক্রমণ রোধে ঘরে থাকবেন।নিজেরা সুস্থ থেকে অন্যদেরও সুস্থ থাকতে সাহায্য করবেন।