যে ভিডিও দেখে মুগ্ধ হয়েছেন শাহরুখ খান

১৭ ডিসেম্বর থেকে প্রচারিত একটি নাগরিক সচেতনতামূলক বিজ্ঞাপন নজর কেড়েছে অনেকের। বাদ যাননি বলিউডের বাদশাহ শাহরুখ খানও। ভিডিওটি নিজের টুইটার অ্যাকাউন্টে শেয়ার করে এই ‘বাজিগর’ তারকা ধন্যবাদ জানান স্বচ্ছ ভারত অভিযানকে। ৫৪ বছর বয়সী এই অভিনেতা ক্যাপশনে লেখেন, ‘যাঁরা কঠোর পরিশ্রম করে মুম্বাই শহরটাকে প্রতিদিন পরিচ্ছন্ন রাখেন, তাদের ধন্যবাদ। যে মায়েরা, বাবারা শহরটাকে পরিষ্কার রাখেন, তাঁদের ধন্যবাদ। এই ভিডিওটি আমার দুর্দান্ত লেগেছে।’

১ মিনিট ৩২ সেকেন্ডের ওই ভিডিওতে সম্মান জানানো হয় মুম্বাই শহরের প্রত্যেক পরিচ্ছন্নতাকর্মীকে। যাঁরা মুম্বাইয়ের প্রতিটি রাস্তা পরিষ্কার করার জন্য নিজেদের হাত নোংরা করেন, তাঁদের। এই বিজ্ঞাপনে আরও বলা হয়, শহর পরিচ্ছন্ন থাকলেই রোগমুক্ত থাকবে শহরের মানুষ। পাবে স্বাস্থ্যকর জীবন। এই ভিডিওতে পরিচ্ছন্নতাকর্মীদের ধন্যবাদ জানিয়ে বলা হয়, শহরের পরিচ্ছন্নতাকর্মীরাই শহরটিকে দেখে রাখেন। প্রতিদিন ৪৬ হাজার পরিচ্ছন্নতাকর্মী ৭ হাজার ২০০ টন আবর্জনা পরিষ্কার করেন

শেষে বলা হয়, কেবল পরিচ্ছন্নতাকর্মীরই না, শহরকে পরিষ্কার রাখা আমাদের সবার নাগরিক দায়িত্ব। ময়লা–আবর্জনা যথাস্থানে ফেলার জন্য নাগরিকদের আহ্বান জানানো হয়। এই ভিডিও শেয়ার করে শাহরুখ খান স্বচ্ছ ভারত অভিযানের সঙ্গে একাত্মতা প্রকাশ করেছেন। ‘স্বচ্ছতা ওয়ারিয়র্স’–এর সব সদস্যকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন। ধন্যবাদ জানিয়েছেন বিএমসিকে (বৃহৎ মুম্বাই মিউনিসিপ্যাল করপোরেশন), যাদের সহযোগিতায় নির্মিত হয়েছে এই ভিডিও।

মাত্র ২০ ঘণ্টায় শাহরুখ খানের এই পোস্ট পছন্দ করেছেন ২০ হাজারেরও বেশি মানুষ। আর পোস্টটি রিটুইট করা হয়েছে ২ হাজার ৬০০ বার। মাই বিএমসি মাই মুম্বাই নামের ইউটিউব চ্যানেল থেকে এই ভিডিও পোস্ট করে ক্যাপশনে লেখা হয়, তাঁরা নিজেদের হাত নোংরা করে নিশ্চিত করেন, পরিচ্ছন্ন থাকবে এই শহর।

যেকোনো পরিস্থিতিতে যেন শহরের প্রতিটি রাস্তা, প্রতিটি কোণ চকচকে থাকে, তাই তাঁরা দিনরাত খেটে মরেন।

এটাই একজন ‘স্বচ্ছতা ওয়ারিওর’–এর জীবন। শহরকে পরিচ্ছন্ন রাখতে তাঁদের কত আত্মত্যাগ!