মানবতার কল্যানে পুলিশ কর্মকর্তা স্পিনা রাণী

নুরুল আমিন দুলাল ভূঁইয়া, লক্ষ্মীপুর প্রতিনিধিঃ লক্ষ্মীপুরের রায়পুরে অসহায় সুবিধাবঞ্চিত ছিন্নমূল পরিবারের মাঝে ঈদ উপহার নিয়ে ছুটে, জান রায়পুর রামগঞ্জ সার্কেল’র সহকারী পুলিশ সুপার স্পিনা রাণী প্রামাণিক।

রবিবার ২৪ মে সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত রায়পুরের অসহায় নিরন্ন প্রত্যন্ত চরাঞ্চলের রায়পুর বেড়িবাঁধের দু’পাশে বসবাসকারী দুস্হ পরিবারগুলোতে ঘুরে ঘুরে ঈদ উপহার সামগী বিতরন করেন তিনি।

এ সময় করোনাভাইরাসের সমন্ধে সচেতনতামূলক প্রচারনার পাশাপাশি সুরক্ষা সামগ্রীও বিতরন করা হয়। বিগত ৩/৪ মাস ধরে তিনি মাঠ পর্যায়ে করোনাভাইরাস সমন্ধে জনগনকে সচেতন করার প্রয়াসে বিরামহীন ভাবে প্রতিনিয়ত সকাল থেকে রাত পর্যন্ত কাজ করে জনমনে প্রশংসা কুড়িয়েছেন।

মাঠ পর্যায়ের তথ্য অনুসন্ধানে জানা যায়, বৈশ্বয়িক এই মহামারি করোনাভাইরাসে চলমান সংকটে সারাদেশের ন্যায় রায়পুর উপজেলায় লকডাউনে আটকে পড়া গৃহবন্দী জনগোষ্ঠীর এসব পরিবারে ঈদ আনন্দ নেই বললেই চলে । অস্হায়ী আবাসন আর ভাসমান জীবন যাপনের কারনে এসব পরিবার গুলোর নাম আসেনা সরকারি সুবিধাভোগীদের তালিকায়।

এছাড়া ও টানা দু’মাস নিষেধাজ্ঞা শেষে লকডাউন পরিস্থিতিতে আটকা পড়ে দুর্দশায় দিনাতিপাত করছেন এখানে বসবাসকারী অধিকাংশ জেলে পরিবার গুলি।

রায়পুর -রামগঞ্জ সার্কেল এ দায়িত্ব প্রাপ্ত বাংলাদেশ পুলিশের এ কর্মকর্তা ইতোমধ্যে বিভিন্ন সামাজিক কার্যক্রমের মাধ্যমে একজন ” মানবিক অফিসার ” হিসেবে সর্বমহলে ব্যাপক প্রশংসিত হয়েছেন।

চলমান কর্মনিয়ে জানতে চাইলে এএসপি স্পিনা রাণী প্রামাণিক বলেন, সুবিধাবঞ্চিত এমন সব পরিবারের সদস্যদের সাথে ঈদ আনন্দ ভাগাভাগি করে নিতে আমার সামান্য প্রচেষ্টা মাত্র। করোনা পরিস্থিতি’র মধ্যে নিজেদের সুরক্ষিত রেখে ঈদ আনন্দ উদযাপন করতে সকলের প্রতি আহবান করেন।