ভৈরব রেল ষ্টেশন এলাকায় ছনিতাই: ৩ ছিনতাইকারি আটক

ভৈরব রেলওয়ে ষ্টেশন এলাকায় দুই ঘন্টার ব্যবধানে তিনটি ছিনতাইয়ের ঘটনা ঘটেছে। খবর পেয়ে ভৈরব রেলওয়ে পুলিশ তিন ছিনতাইকারিকে আটক করেছে। গতকাল সোমবার সন্ধা সাড়ে সাতটা থেকে রাত নয়টার মধ্যে এ সকল ছিনতাইয়ের ঘটনা ঘটেছে বলে পুলিশ ও ছিনতাইকারিদের দ্বারা আক্রান্তরা জানায়।

আটককৃতদের কাছ থেকে একটি ধারালো ছুড়া উদ্ধার করা । ভৈরব রেলওয়ে ষ্টেশন রোডে সাইফুল ও সুজন নামে দুই যুবকের কাছ থেকে নগদ টাকা ও মোবাইল ফোন ছিনিয়ে নেয় ছিনতাইকারিরা। এ ঘটনার দুই ঘন্টা পর রাত সাড়ে নয়টার সময়ে রেলওয়ে ষ্টেশনের পূর্ব পাশে পথচারিকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে আঘাত করে জখম করে। খবর পেয়ে রেলওয়ে পলিশ রেল ষ্টেশনের পূর্বপাশ থেকে ধারালো ছুড়ি সহ ছিনতাইকারি মিঠুন (১৯), সঞ্জু (২০) ও পায়েল (১৯) কে আটক করে। ছিনতাইকারিদের দ্বারা আক্রান্তরা হলো মিটামইণ এলাকার চাকুরিজীবী সুজন (২০) ও জগন্নাথপুর গ্রামের হাজী ইউছুফ আলী উচ্ছ বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণির ছাত্র সাইফুল ইসলাম (১৮) ও শহরের ভৈরবপুর এলাকার শামীম আহমেদ।

ভৈরব রেলওয়ে থানার উপ-পরিদর্শক সুরুজ্জামান বলেন, শামীম নামে এক যুবককে ছিনতাইকারিরা ধারালো অস্ত্র দিয়ে আঘাত করে জখম করেছে মর্মে খবর পাই। তখন সঙ্গিয় ফোর্স নিয়ে ঘটনাস্থলে পৌছে উল্লেখিত তিন ছিনতাইকারিকে ধারালো অস্ত্রসহ আটক করতে সক্ষম হই এবং আটককৃতদের বিরুদ্ধে মামলা দিয়ে আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে।
উল্লেখ্য , এই সড়কে গত এক মাসে প্রায় এক ডজন ছিনতাইয়ের ঘটনা ঘটেছে বলে স্থানীয়রা জানায়। এই সড়কে নিত্যদিনের ছিনতাইয়ের ঘটনায় এ রাস্তা দিয়ে চলাচল করতে ভৈরবসহ আশপাশের মানষের মাঝে এখন চরম আতংক বিরাজ করছে। পুলিশ প্রায়ই অভিযান চালিয়ে ছিনতাইকারিদের গ্রেফতার করে আদালতে পাঠালেও কিছুতেই কমছেনা ছিনতাইয়ের ঘটনা। পুলিশি অভিযান অব্যাহত রয়েছে বলে জানান ভৈরব থানা পুলিশ।