ভৈরবে মালতের মাংস বিতরনকে কেন্দ্র করে ২ পক্ষের সংঘর্ষে ১ জন নিহত

জয়নাল আবেদীন রিটন, ভৈরব প্রতিনিধি: কিশোরগঞ্জের ভৈরবে কোরবানীর মালতের মাংস বিতরনকে কেন্দ্র করে ২ পক্ষের সংঘর্ষে শাহ আলম ( ৩৫ ) নামে ১ বিদ্যুৎকর্মী নিহত হয়েছে।

সে কান্দিপাড়া গ্রামের মৃত নুরুল ইসলামের পুত্র এবং সে কুলিয়ারচর বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ডে লাইনম্যান হিসেবে কর্মরত ছিল। আহত হয়েছে আরো ৭ জন। এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে প্রতিপক্ষের হামলায় বেশ কয়েকটি বাড়ি-ঘর ভাংচুর করা হয়েছে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

এলাকাবাসি ও পুলিশ জানায়, ঈদের দিন বিকালে শিমুলকান্দি ইউনিয়নের কান্দিপাড়া গ্রামে জানমাহমুদের বাড়িতে কোরবানির মালতের মাংস বিতরনকে কেন্দ্র করে বাওরার বাড়ির লোকজনের সাথে জান মাহমুদের বাড়ির লোকজনের কথাকাটাকাটি হয়।

এক পর্যায়ে ২ পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ হয় । সংঘর্ষের এক পর্যায়ে শাহ আলমের মাথায় কাঠের লাঠি দিয়ে আঘাত করলে সে অজ্ঞান হয়ে মাটিতে লুটিয়ে পড়ে । পরে তাকে স্থানীয় উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় প্রেরণ করে । ঢাকায় নিউরোলজি সায়েন্স হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

এ বিষয়ে ভৈরব থানার ওসি মোঃ শাহিন জানান, কোরবানির মালতের মাংস বিতরনকে কেন্দ্র করে ২ পক্ষের সংঘর্ষে শাহআলম নামে ১ জন মারা গেছে। আমরা লাশের সুরতহাল করেছি এবং ময়নাতদন্তের জন্য কিশোরগঞ্জ মর্গে পাঠিয়েছি। এ ঘটনায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।