ভৈরবে বেসরকারী হাসপাতাল ও ক্লিনিকে ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযান; দুই লাখ টাকা জরিমানা

জয়নাল আবেদীন রিটন, ভৈরব প্রতিনিধি: কিশোরগঞ্জের ভৈরবে হাসপাতাল, ক্লিনিকের কাগজপত্র, লাইসেন্স এবং যন্ত্রপাতি সঠিক না পাওয়ায় ১৩ টি বিভিন্ন বেসরকারী হাসপাতাল ক্লিনিকে ভ্রাম্যমান আদালত অভিযান চালিয়ে ২ লাখ টাকা জরিমানা করেছে। অভিযানটি পরিচালনা করেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও ম্যাজিস্টেট লুবনা ফারজানা। এসময় তার সাথে ছিলেন সহকারী কমিশনার ( ভূমি) ও ম্যাজিস্ট্যাট হিমাদ্রি খিসা, উপজেলা স্বাস্হ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ মোঃ খোরশেদ আলম।

অভিযান অব্যাহত থাকবে বলে জানান উপজেলা স্বাস্হ্য কর্মকর্তা। অভিযানে যাদেরকে জরিমানা করা হয় এসব প্রতিষ্ঠান হলো সাজেদা আলাল হাসপাতালকে ১০ হাজার টাকা, সাঈদ মেমোরিয়াল হাসপাতালকে ১০ হাজার, ফরিদা হেলথ কেয়ারকে ১৫ হাজার, ট্রমা হাসপাতালকে ১৫ হাজার, ভৈরব চক্ষু ক্লিনিককে ৫ হাজার, গ্রামীন হাসপাতালকে ২০ হাজার, মেডিল্যাব ক্লিনিককে ১০ হাজার, মেঘনা হাসপাতালকে ৫ হাজার, আলামিনকে ২০ হাজার , পন্মা জেনারেল হাসপাতালকে ৩০ হাজার, ডাঃ হরিপদ বাবুকে ২০ হাজার, মা ও শিশু জেনারেল হাসপাতালকে ২০ হাজার ও সেন্ট্রাল হাসপাতালকে ২০ হাজার টাকা।

উপজেলা স্বাস্হ্য কর্মকর্তা ডাঃ মোঃ খোরশেদ আলম জানান, লাইসেন্সবিহীন ও সঠিক যন্ত্রপাতি না থাকলে হাসপাতাল ক্লিনিক চলতে পারেনা। আজ তাদেরকে ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে সামান্য জরিমানা করে সতর্ক করা হয়েছে। ভবিষ্যতে নিয়মের মধ্যই হাসপাতাল পরিচালনা করতে হবে। উপজেলা নির্বাহী অফিসার লুবনা ফারজানা জানান, অভিযানকালে যেসব হাসপাতাল, ক্লিনিকের কাগজপত্র, লাইসেন্স এবং যন্ত্রপাতি সঠিক পাওয়া যায়নি সেইসব প্রতিষ্ঠানকে ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে জরিমানা করা হয়। উর্ধতন কর্তৃপক্ষের নির্দেশে এই অভিযান চালানো হয়। আগামীকালও ভৈরবে এই অভিযান চলবে বলে তিনি জানান।