ভারত এশিয়া কাপে না এলে ২০২১ টি টোয়েন্টি বিশ্বকাপে অংশ নেবে না পাকিস্তান

আসন্ন এশিয়া কাপের আয়োজক দেশ পাকিস্তান। চলতি বছরের সেপ্টেম্বরে ইমরান খানের দেশে বসবে এশিয়ার শ্রেষ্ঠত্বের এই আসর। যদিও পাকিস্তানে এশিয়া কাপ আয়োজনে রয়েছে রয়েছে শঙ্কা। কারণ অন্যান্য দলগুলো রাজি হলেও বেঁকে বসতে পারে ভারত।

বাংলাদেশের পাকিস্তান সফর নিশ্চিত হবার পর থেকে গুঞ্জন শোনা যাচ্ছিল নিরাপত্তার কারণে পাকিস্তানে এশিয়া কাপ না হলে বাংলাদেশ হতে পারে ২০২০ এশিয়া কাপের আয়োজক।

তবে গতকাল শুক্রবার (২৪ জানুয়ারি) পিসিবির প্রধান নির্বাহী ওয়াসিম খান জানিয়েছেন, এশিয়া কাপ পাকিস্তানে আয়োজনে সর্বোচ্চ চেষ্টাই করবে পিসিবি।‘পাকিস্তানকে আয়োজক হিসেবে নির্ধারণের সিদ্ধান্তটা এশিয়ান ক্রিকেট কাউন্সিলের (এসিসি)। তাই স্বাগতিক দেশ পরিবর্তন হওয়ার কোনো সম্ভাবনা নেই।

অন্যদিকে পাকিস্তান আগেভাগেই হুঙ্কার দিয়েছে, ভারত এশিয়া কাপে অংশ না নিলে ভারতে অনুষ্ঠিতব্য ২০২১ টি টোয়েন্টি বিশ্বকাপে অংশ নেবে না পাকিস্তান।

উল্লেখ্য, ২০২১ চ্যাম্পিয়নস ট্রফির আয়োজক ছিল ভারত। তবে পঞ্চাশ ওভারী আসর বাদ দিয়ে কুড়ি ওভারের বিশ্বকাপ আয়োজন করবে ভারত। যেখানে ইতিমধ্যে সুযোগ নিশ্চিত হয়েছে ভারত-পাকিস্তান উভয় দলেরই।

পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডের (পিসিবি) প্রধান নির্বাহী ওয়াসিম খান এক রকম সতর্ক বার্তাই পাঠিয়েছেন ভারতের প্রতি। তার ভাষ্যমতে পাকিস্তানে এসে খেলতেই হবে ভারতকে।

এশিয়া কাপ আয়োজনের জন্য আমরা এই মুহূর্তে দুটি ভেন্যুর কথা বিবেচনা করছি। যদি ভারত এশিয়া কাপের জন্য পাকিস্তানে না আসে, তাহলে ২০২১ সালের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে অংশগ্রহণ করতে অস্বীকৃতি জানাব আমরা।’