ভারতের উত্তর-পূর্বাঞ্চল ভ্রমণে যুক্তরাষ্ট্র,যুক্তরাজ্য,কানাডার সতর্কতা জারি

ভারতে নাগরিকত্ব আইন নিয়ে উত্তপ্ত দেশটির উত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় রাজ্যগুলো। উত্তর ও পূর্বাঞ্চলের আসাম, ত্রিপুরা, মেঘালয়ে বিক্ষোভ ছড়িয়ে পড়েছে। এমন পরিস্থিতিতে এসব রাজ্যে ভ্রমণের ক্ষেত্রে সতর্কতা জারি করেছে যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য ও কানাডা। বিশেষ প্রয়োজন ছাড়া এই রাজ্যগুলো ভ্রমণ না করতে পরামর্শ দিয়েছেন।

বৃহস্পতিবার রাতে নাগরিক বিলে রাষ্ট্রপতির স্বাক্ষরের পরই দেশের আইনে পরিণত হয়েছে এই বিল। এরপর থেকেই উত্তর-পূর্বাঞ্চলে সহিংসতা আরও বেড়েছে। প্রতিবাদের আগুন জ্বলছে আসাম ও ত্রিপুরায়। আসামের গুয়াহাটিতে অনির্দিষ্টকালের কারফিউ জারি হয়েছে। বন্ধ রয়েছে মোবাইল ইন্টারনেট ও এসএমএস সেবা।এমন পরিস্থিতিতে এসব রাজ্যে ভ্রমণের সময় গাড়িতে ভাঙচুর চালানো হতে পারে বলে সতর্ক করে দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য ও কানাডা।তাই এসব রাজ্যে ভ্রমণ এড়িয়ে চলতে বলা হয়েছে।

চলতি সপ্তাহের শুরুতে বিজেপি নেতৃত্বাধীন মোদি সরকার বিতর্কিত নাগরিকত্ব আইন দেশের উত্তর-পূর্বের রাজ্যগুলোর ওপর চাপিয়ে দেয়। বহু মানুষ এই আইনের ফলে হারিয়েছেন তাদের দীর্ঘদিনের নাগরিকত্ব। এতে সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে গুয়াহাটি। মশাল মিছিল করে প্রতিবাদ জানিয়েছেন হাজার হাজার সাধারণ মানুষ। এরই মধ্যে সেখানে পাঁচজন নিহত হয়েছে বলে জানা গেছে। এদিকে ভারতের এমন অশান্ত পরিবেশ নিয়ে প্রতিক্রিয়া জানিয়েছে আন্তর্জাতিক মহলও। আগামী সপ্তাহে গুয়াহাটিতে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সঙ্গে তার সম্মেলন স্থগিত রেখেছেন জাপানের প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবে। অন্যদিকে জাতিসংঘের মানবাধিকার দপ্তরও জানিয়েছে, দেশ থেকে মুসলিম নাগরিকদের সরাতে ভারতের এই নতুন নাগরিকত্ব আইন ‘বৈষম্যমূলক’।