বায়েজিদে গৃহবধূর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার, স্বামী আটক

মোঃরাশেদ, চট্টগ্রাম প্রতিনিধিঃ নগরীর বায়েজিদ থানাধীন হাজিরপুল এলাকার একটি বাসা থেকে সাজেদা বেগম রিনা (২৭) নামে এক গৃহবধূর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। শনিবার সকালে ওই গৃহবধূর লাশ উদ্ধার করা হয়।

নিহত রিনা চান্দগাঁও থানাধীন শমসের পাড়া এলাকার মৃত মো. হাসেমের মেয়ে। সিএমপি বায়েজিদ জোনের সহকারী কমিশনার পরিত্রাণ তালুকদার বলেন, এ ঘটনায় নিহতের পরিবারের পক্ষ থেকে একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে। এর প্রেক্ষিতে নিহতের স্বামী আতাউর রহমানকে আটক করেছে পুলিশ।

তবে বায়েজিদ থানার এএসআই আশরাফুল জানান, প্রাথমিকভাবে আত্মহত্যায় প্ররোচনা দেওয়ার অভিযোগে মামলাটি রুজু করা হয়। এর আগে নিহতের বড় ভাই সরোয়ার আলম বলেন, পারিবারিক কলহের জের ধরে রিনাকে মেরে ঘটনাটি আত্মহত্যা হিসেবে সাজানোর চেষ্টা চালাচ্ছে শ্বশুরবাড়ির লোকজন।

তিনি বলেন, ঘটনার দিন ভোর সাড়ে ৬টা নাগাদ আতাউর রহমান তার বোনের নম্বর থেকে আমাকে ফোন করে জানায় রিনা গলায় ফাঁস খেয়েছে। এ সময় তার লাশটি নামানোর জন্য আমাকে সেখানে যেতে বলেন। আমি তাকে বিষয়টি পুলিশকে জানানোর জন্য বলি। এরপর সে মোবাইল সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে দেয়।

সরোয়ার আরো বলেন, রিনা মারা যাওয়ার খবর পেয়ে আমি পরিবারের সব সদস্যদের জানিয়ে ঘটনাস্থলে ছুটে যাই। তখন সকাল ৯টা বাজে। পুলিশ এসে পৌঁছায়নি। থানায় খবর দেয়ার পরও পুলিশ আসতে দেরি করায় ৯৯৯ নম্বরে ফোন করি। পরে পুলিশ এসে লাশটি উদ্ধার করে।

নিহতের পরিবার জানায়, দশ বছর আগে আতাউর রহমানের সাথে রিনার বিয়ে হয়। চান্দগাঁও শমসের পাড়ায় আতাউরের একটি ফার্মেসি রয়েছে। বিয়ের দশ বছর হলেও তাদের কোনো সন্তান ছিল না। সন্তান জন্ম দিতে না পারার বিষয় নিয়ে স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে প্রায় ঝগড়া হতো। আতাউর সন্তান না হওয়ায় স্ত্রীকে দোষারোপ করতেন।