বগুড়ার গাবতলীতে পূর্বশত্রুতার জের ধরে এক প্রাণী চিকিৎসকের উপর হামলা করেছে দুর্বৃত্তরা

 মো: রিয়াজ মাহমুদ, গাবতলী (বগুড়া) প্রতিনিধি: বগুড়ার গাবতলী উপজেলা নারুয়ামালা ইউনিয়নের সোনাপুর গ্রামের প্রাণী চিকিৎসক আব্দুল মোতালেব সকাল ৬টায় চিকিৎসার উদ্দেশ্যে বাড়ি থেকে রওনা হলে পূর্ব শত্রুতার জেরে নুরুল আমিন নূরী পিতা মৃত ফকির মাহমুদ পরামানিক আব্দুল হাকিম পিতা নুরুল আমিন, নূরনবী, মাহফুজার রহমান, আপু মিয়া সকলের পিতা মৃত ফকির মাহমুদ প্রামানিক, সুইটি বেগম স্বামী নুরুল আমিনের দলবল নিয়ে তাকে আতর্কিক হামলা চালায়।

এমতাবস্থায় সকলে মিলে এলোপাথাড়ি কিল-ঘুষি দিতে থাকে। এক পর্যায়ে নূরনবী চাইনিজ কুড়াল আপু মিয়া রামদা মাহফুজার রহমান চাপাতি আব্দুল হাকিম চাইনিজ কুড়াল নিয়ে আসে এক পর্যায়ে সুইটি বেগম রামদা নিয়ে এসে নুরুল আমিনকে দিলে উক্ত রামদা দিয়ে কোপাতে শুরু করে এক পর্যায়ে মাথার ডান পাশে রামদার আঘাত লাগে। রক্তক্ষরণ হওয়া অবস্থায় তখন সকলে মিলে এলোপাথাড়ি কিল-ঘুষি লাথি দিতে থাকে।

আহতের স্ত্রী মোরশেদা বেগম এগিয়ে আসলে সুইটি বেগম তাকে চুল ধরে টানাটানি করে বর্তমানে সে মাথায় প্রচন্ড আঘাত প্রাপ্ত। তার চাচাত ভাই মুকুল এগিয়ে আসিলে নুরনবীর হাতে থাকা রামদা দিয়ে তার ডান হাঁটুতে আঘাত করে ফলে তার হাটু কেটে যায় তখন স্থানীয়রা তাদের উদ্ধার করে গাবতলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে পাঠিয়ে দেয় । স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স থেকে তার মাথায় ১০টি সেলাই করা হয়। অপরদিকে মুকুল প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়ে বাড়ি চলে যায়। এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত গাবতলী মডেল থানায় মামলার প্রস্তুতি চলছিল।