ফাঁকা পদে নতুনের সঙ্গে থাকবেন পুরোনো নেতারাও

জাতীয় সম্মেলনের কাউন্সিল অধিবেশনে (গত শনিবার) আওয়ামী লীগের ৮১ সদস্যের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের মধ্যে ৪২টি পদে নেতা নির্বাচন করা হয়। এখনো সম্পাদকমণ্ডলীর ১০টি, কোষাধ্যক্ষের ১টি ও নির্বাহী কমিটির ২৮টি পদ শূন্য আছে। অর্থাৎ আরও ৩৯টি পদ পূরণ করতে হবে।

গতকালের বৈঠকে উপস্থিত থাকা একাধিক নেতা বলেন, সভাপতিমণ্ডলীর সদস্যরা দলের কেন্দ্রীয় কমিটির ৩৯টি ফাঁকা পদে নিজ নিজ পছন্দের নাম প্রস্তাব করেছেন। এ বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেওয়ার ভার দেওয়া হয়েছে দলীয় প্রধান শেখ হাসিনাকে। সভাপতিমণ্ডলীর সদস্যদের দেওয়া নামের তালিকা যাচাই–বাছাই করবেন তিনি। এরপর কেন্দ্রীয় কমিটির পূর্ণাঙ্গ তালিকা আনুষ্ঠানিকভাবে প্রকাশ করা হবে।

ফাঁকা পদ পূরণ করে আওয়ামী লীগের পূর্ণাঙ্গ কমিটি আগামীকাল বৃহস্পতিবার ঘোষণা করা হবে বলে জানিয়েছেন দলের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। তিনি বলেন, ফাঁকা পদে নতুন মুখ ও পুরোনো নেতারাও থাকবেন। তবে মন্ত্রিসভার সদস্যরা থাকবেন কি না, সে সিদ্ধান্ত দেবেন আওয়ামী লীগের সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

আওয়ামী লীগের জাতীয় সম্মেলনের পর গতকাল মঙ্গলবার সন্ধ্যায় গণভবনে দলের নবগঠিত সভাপতিমণ্ডলীর প্রথম বৈঠকের পর সাংবাদিকদের এ তথ্য জানান ওবায়দুল কাদের। বৈঠকে সভাপতিত্ব করেন দলের সভাপতি শেখ হাসিনা।