পটিয়ার বাইপাসে সড়ক দুর্ঘটনায় ০২ স্কুল ছাত্রের মৃত্যু

রতন দাশ, সাতকানিয়া প্রতিনিধিঃ দক্ষিণ চট্টগ্রামের পটিয়ার বাইপাস সড়কে দুর্ঘটনার কবলে পড়ে ০২ স্কুলছাত্রের মর্মান্তিক মৃত্যু। তাদের মরদেহের অদূরে পড়েছিল দু’টি বাইসাইকেল।

নিহত দুই স্কুল শিক্ষার্থীর শরীরে বেশকিছু জখমের চিহ্ন দেখে পুলিশ ও স্থানীয় জনসাধারণের ধারণা, হয়তো সাইকেল চালিয়ে মহাসড়কে বেড়াতে গিয়েছিল দুই কিশোর। অজ্ঞাত কোনো গাড়ি ধাক্কা দিয়ে তাদের প্রাণ কেড়ে নিয়েছে।

রোববার (৩০ শে আগস্ট) বিকেলের দিকে পটিয়া পৌরসভা এলাকার বাইপাস সড়ক থেকে তাদের উদ্ধার করা হয়েছে বলে পুলিশ জানিয়েছে।
নিহত সিরাজুল ইসলাম (১৪) পটিয়া উপজেলার শোভনদণ্ডী ইউনিয়নের কুরংগীরি গ্রামের মোঃ বেলালের ছেলে। স্থানীয় কুরংগীরি উচ্চ বিদ্যালয়ের ষষ্ঠ শ্রেণীর শিক্ষার্থী সে। নিহত আরেক কিশোর আরমান হোসেন (১২) একই উপজেলার আশিয়া ইউনিয়নের ইলিয়াস হোসেনের ছেলে। সে পটিয়া পৌর সদরের মোহছেনা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পঞ্চম শ্রেণির শিক্ষার্থী। উভয়ের পরিবার পটিয়া পৌরসভা এলাকায় ভাড়া বাসায় বসবাস করে বলে জানা যায়।

হাইওয়ে পুলিশ পটিয়া ক্রসিং ফাঁড়ির ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) বিমল চন্দ্র ভৌমিক বলেন, ‘বাইপাস সড়কের কয়েক কিলোমিটার এলাকা একেবারে নির্জন। আশপাশে জনবসতি নেই। এমন নির্জন এলাকায় সড়কের পাশে দু’জন রক্তাক্ত অবস্থায় পড়েছিল। স্থানীয়রা দেখে পুলিশকে খবর দেয় এবং পরবর্তীতে তাদেকে পটিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যাওয়া হলে সেখানকার চিকিৎসক তাদের মৃত অবস্থায় নেওয়া হয়েছে বলে জানান।’
ওসি বিমল চন্দ্র আরও বলেন, আমরা খবর পেয়ে তাদের লাশ নিজেদের হেফাজতে নিয়েছি।

তবে কখন, কিভাবে তাদের মৃত্যু হয়েছে সেটা নিশ্চিত করে বলতে পারছি না। দু’জনের মাথার পেছন দিকটা একেবারে থেঁতলে গেছে। ধারণা করছি, তারা বাইপাস সড়ক দিয়ে সাইকেল চালাচ্ছিল। অজ্ঞাত গাড়ির ধাক্কায় ছিটকে পড়ে তাদের মৃত্যু হয়েছে।