নেত্রকোণা জেলা প্রেসক্লাবের সহ-সভাপতি হায়দার জাহান ও সম্পাদক মোখলেছুর রহমান

জাহাঙ্গীর আলম, নেত্রকোণা প্রতিনিধিঃ নেত্রকোণা জেলা প্রেসক্লাবের নির্বাচনে সহ-সভাপতি হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন

বীর মুক্তিযোদ্ধা সাংবাদিক হায়দার জাহান চৌধুরী এবং তৃতীয় বারের মতো ভোটে জয়লাভ করে সম্পাদক হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন সাংবাদিক এম. মোখলেছুর রহমান খান।

মঙ্গলবার (৩০ মার্চ) প্রেসক্লাব কার্যালয়ে ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়। সহ-সভাপতি পদে হায়দার জাহান চৌধুরী ছাড়াও নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন,

সাংবাদিক শ্যামলেন্দু পাল, আব্দুল হান্নান রঞ্জন। এরমধ্যে ৩৮ ভোট পেয়ে জয়লাভ করেন বীর মুক্তিযোদ্ধা সাংবাদিক হায়দার জাহান চৌধুরী।

অপরদিকে নির্বাচনে ভোটের প্রতিদ্বন্দ্বিতায় শ্যামলেন্দু পাল ২৩ ও আব্দুল হান্নান রঞ্জন ৮ ভোট অর্জন করে পরাজিত হন।

সম্পাদক হিসেবে ভোটে তৃতীয় বারের মতো নির্বাচিত হয়েছেন সাংবাদিক এম. মোখলেছুর রহমান খান।

তিনি ৩৮ ভোট পেয়েছেন।বিপরীতে সম্পাদক হিসেবে নির্বাচনে অংশ নিয়ে পরাজিত হয়েছেন, সাংবাদিক হাবিবুর রহমান খান, মনিরুজ্জামান মহসিন ও জাহাঙ্গীর আলম সজল।

যুগ্ম-সম্পাদক হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন, একেএম আব্দুল্লাহ। তার অর্জিত ভোটের সংখ্যা ৩৭ এবং প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী সুজাদুল ইসলাম ফারাস

৩২ ভোট পেয়ে পরাজিত হন।কোষাধ্যক্ষ হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন, আলতাবুর রহমান কাশেম ৩৭ এবং ৩২ ভোট পেয়ে পাঁচ ভোটের ব্যবধানে

পরাজিত হয়েছেন নজরুল ইসলাম। সাহিত্য সংস্কৃতি সম্পাদক পদে পরাজিত হয়েছেন, মনোরঞ্জন সরকার।

তিনি পেয়েছেন ২৬ ভোট এবং ৪২ ভোট পেয়ে বিজয়ী প্রার্থী আনোয়ার হোসেন। ২৮ ভোট অর্জন করে দফতর

সম্পাদক পদে নির্বাচিত হয়েছেন দিলওয়ার খান। একই পদে প্রতিদ্বন্দ্বীতা করে জাহিদ হাসান ২৪ ও মুজাহিদুল ইসলাম সবুজ ১৬ ভোট পেয়ে পরাজিত হয়েছেন।

চারটি সদস্য পদের জন্য ভোটে প্রতিদ্বন্দ্বীতা করেছেন ছয়জন প্রার্থী। তাদের বিজয়ী চার প্রার্থী নাজমুস শাহাদাত নাজু ৫৩,

আল্পনা বেগম ৪৩, শিমুল মিলকী ৩৮, ম. কিবরিয়া চৌধুরী হেলিম ৩৫ ভোট পেয়েছেন। বিপরীতে পরাজিত দুই প্রার্থীর প্রাপ্ত

ভোট সংখ্যা খলিলুর রহমান শেখ ইকবাল ৩১ ও ভজন দাস ২৮ ভোট।তবে নির্বাচনে ভোটের জন্য প্রতিদ্বন্দ্বীতা করতে হয়নি বরং

বিনা-প্রতিদ্বন্দ্বীতায় নির্বাচিত হয়েছেন, সঞ্জয় সরকার ও হানিফ উল্লাহ্ আকাশ। তাদের মধ্যে সঞ্জয় সরকার হলেন,

প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক এবং হানিফ উল্লাহ্ আকাশ তথ্য ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক। ভোটাররা আগামী দুই বছরের জন্য

জেলা প্রেসক্লাবের নতুন এ নেতৃত্ব বেছে নিয়েছেন। প্রধান নির্বাচন কর্মকর্তা এড. আমিনুল ইসলাম নির্বাচনী ফলাফল নিশ্চিত করেছেন।