নেত্রকোণায় মাসব্যাপি শ্রীকৃষ্ণের দামোদর দীপদান উৎসব চলছে

 জাহাঙ্গীর আলম, নেত্রকোণা প্রতিনিধিঃ করোনার প্রাদুর্ভাবে স্বাস্থ্যবিধি মেনে নেত্রকোণায় মাসব্যাপি শ্রীকৃষ্ণের দামোদর দীপদান উৎসব চলছে। নেত্রকোণা পৌরশহরের গাড়া রোডে শ্রী জগন্নাথ বল্লভ মন্দিরের পরিচালক শ্রীমান জয়রাম দাস মাসব্যাপি এই দীপদান উৎসব উদ্বোধন করেন। উৎসব উপলক্ষ্যে প্রতিদিন মন্দিরে জেলার বিভিন্ন এলাকা থেকে অসংখ্য ভক্তের সমাগম হচ্ছে। আগামী ৩০নভেম্বর পর্য্যন্ত উৎসব উপলক্ষ্যে দীপদান, আরতি, গ্রন্থবিতরণ, নামসংকীর্তন, গীতাপাঠসহ ভক্তদের মাঝে মহাপ্রসাদ বিতরণ করা হচ্ছে।

এবারে করোনার সংক্রমণের কারণে শ্রীকৃষ্ণের দীপদান উৎসবে জেলার বিভিন্ন এলাকায় অনেক ভক্তের বাড়িতেও এ উৎসব অনুষ্ঠিত হবে। দামোদর দীপদান উপলক্ষে ইসকন দীক্ষাগুরু শ্রীল সুভগ স্বামী গুরুমহারাজ ভক্তদের উদ্দেশ্যে ভার্চুয়াল বিশেষ অমৃত বাণী দিয়েছেন। গুরুমহারাজ তাঁর বাণীতে বলেন, পরম মঙ্গলময় ভগবান শ্রীকৃষ্ণের দামোদর মাসকে অবহেলা করা উচিত নয়। পরমেশ্বর ভগবান শ্রীকৃষ্ণ সর্বাবস্থাতেই আমাদের প্রতি করুণাময়, আর তাই তিনি আমাদের কৃষ্ণভাবনাময় হওয়ার জন্যই এই দামোদর-মাস প্রদান করেছেন। ভগবানের প্রতি ভক্তিভাব বৃদ্ধির জন্য আমাদের ভক্তি সহকারেই দামোদর মাস পালন করা উচিত।

এজন্য সনাতন ধর্মাবলম্বী সকলকে জাগ্রত হওয়ার জন্য আহবান জানাচ্ছি। ইসকন নেত্রকোণার অধ্যক্ষ শ্রীমান তুলসীদাস ব্রহ্মচারী জানান, ইতোমধ্যে মাসব্যাপী দামোদর দীপদান উৎসব শুরু হয়েছে। ঐ অনুষ্ঠান সনাতন ধর্মাবলম্বীদের জন্য খুবই মঙ্গলজনক একটি উৎসব। প্রতি বছর দীর্ঘ তিন মাস ব্রত পালন করার পর একমাস ধরে মন্দিরে মন্দিরে ধর্মীয় ভাবগাম্ভীর্যতা সহকারে এ উৎসব উদযাপন করা হয়। উল্লেখ্য, পরমেশ্বর ভগবান শ্রীকৃষ্ণের আরেক নাম দামোদর। দাম শব্দের অর্থ রশি এবং উদর হচ্ছে কোমর। মা যশোদা কর্তৃক দ্বাপর যুগে ভগবান শিশু শ্রীকৃষ্ণের উদরে দাম বা রশি দ্বারা বন্ধন করেছিলেন বলেই তিনি দামোদর নামে ভক্তদের কাছে খ্যাত।