নাটোরে হেয়ার টনিক কারখানায় অভিযান, ২ লাখ টাকা জরিমানা

সাজেদুর রহমান, নাটোর প্রতিনিধিঃ নাটোরে অবৈধভাবে ভেজাল হেয়ার টনিক উৎপাদন কারখানায় অভিযান চালিয়ে কারখানা সিলগালা করেছে ভ্রাম্যমান আদালত।

এসময় নুরুজ্জোহা খোকন নামে ওই কারখানার সত্বাধিকারীকে ২ লাখ টাকা অর্থদন্ড করেছে আদালত। বৃহস্পতিবার দুপুরে সদর সহকারী কমিশনার (ভুমি) আবু হাসানের নেতৃত্বে ভ্রাম্যমান আদালত শহরের উলুপুর আমহাটি এলাকায় গড়ে তোলা নির্ভর হেয়ার টনিক নামের কারখানা ও চকরামপুর এলাকার হেয়ার টনিকের বিপনন কেন্দ্রে অভিযান চালিয়ে কারাখানা সিলগালা সহ জরিমানা করা হয়।

উৎপাদন ও বিপননের অনুমোদন না থাকায় ও ওষুধ আইন ১৯৪০ এর বিধান না মানায় ওই কারখানা মালিককে দুই লাখ টাকা জরিমানা সহ কারখানা সিলগালা করা হয়। এছাড়া শহরের চকরামপুর এলাকায় নির্ভর হার্ট কেয়ার সেন্টার নামে তার বিপনন কেন্দ্রে অভিযান চালিয়ে রাসায়নিকযুক্ত বেশ মালামাল জব্দ করা হয়েছে।

ভ্রাম্যমান আদালতের বিচারক সদর সহকারী কমিশনার (ভুমি) আবু হাসান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, উলুপুর আমহাটি এলাকায় ঔষধ প্রসাশন, আয়ুর্বেদিক, হার্বাল, হোমিও বা বিএসটিআই কোন ধরনের নিবন্ধন ছাড়া নুরুজ্জোহা খোকন নামে এক ব্যক্তি চুল গজানোর ঔষধ উৎপাদন করছিলেন।

ওই ব্যক্তি নির্ভর হেয়ার টনিক প্লাস, নির্ভর হেয়ার প্যাক, নির্ভর হেয়ার কেয়ার নামে এসব ভেজাল ও মানব দেহের ক্ষতিকারক এসব হেয়ার টনিক প্রস্তুত করে বাজারজাত করছিল। ওই সব হেয়ার টনিকে প্রাকৃতিক ভেষজ উপাদান লেখা থাকলেও কারখানায় ক্যালসিয়াম কার্বনেট,

ক্যালসিয়াম ফসফেট, টিংচার সহ আরো কিছু রাসায়নিক কেমিকেল পাওয়া গেছে। ভ্রাম্যমান আদালতের সঙ্গীয় প্রসিকিউটর নাটোর সদর হাসপাতালের মেডিকেল অফিসার ডা: রাজেশ কুমার সাহা বলেন, মানবদেহে মানহীন, অনুমোদনহীন এসব ক্ষতিকর দ্রব্যের দীর্ঘমেয়াদী নেতিবাচক প্রভাব রয়েছে। এগুলো ব্যবহারে মানব দেহে ব্যাপক ক্ষতি হবে বলে জানান তিনি।