নাটোরে ট্রাকচাপায় ১জন নিহত-সড়ক অবরোধ

সাজেদুর রহমান, নাটোর প্রতিনিধিঃ নাটোরের হয়বতপুরে ট্রাকের নিচে চাপা পড়ে আমির হোসেন (৩০) নামে এক মোটর সাইকেল চালক নিহত হয়েছে। মঙ্গলবার (২ ফেব্রুয়ারি) সকালে নাটোর -ঢাকা-পাবনা মহাসড়কের হয়বতপুর বাজার এলাকায় এই মর্মান্তিক দুর্ঘটনার পর এলাকাবাসী বিক্ষোভ প্রদর্শন সহ প্রায় ঘন্টাব্যাপী অবরোধ করে রাখা হয়।

এসময় সড়কের দুই পাশের্ব দীর্ঘ যানজটের সৃষ্টি হয়। পরে ঘাতক ট্রাক আটকসহ স্থানীয় প্রশাসনের আশ্বাসে অবরোধ তুলে নেয়া হয়। নিহত আমির হোসেন একজন দর্জি দোকানি ও ষোলশহর এলাকার বাসিন্দা। পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, দর্জি দোকানি আমির হোসেন হয়বতপুর বাজার থেকে মোটরসাইকেল যোগে বাড়ি ফেরার পথে একটি দ্রুতগামী ট্রাক তার মোটরসাইকেলকে চাপা দেয়।

এতে ঘটনাস্থলেই সে মারা যায়। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য নাটোর সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরন করে। এঘটনার প্রতিবাদে এলাকাবাসী সড়ক অবরোধ সহ বিক্ষোভ প্রদর্শন করে। বিক্ষুব্ধদের অভিযোগ, সড়ক সংস্কারের অজুহাতে হাইওয়ে সড়কের হয়বতপুর বাজার এলাকায় দীর্ঘদিন ধরে এক লেনে যানবাহন চলাচল করছে।

ফলে প্রায় এধরনের দুর্গটনার শিকার হচ্ছে মানুষ। দ্রুততম সময়ের মধ্যে দুই লেনে যানবাহন চলাচলের দাবীতে তারা মড়ক অবরোধ করেছে। ঝলমলিয়া হাইওয়ে থানার ওসি এসআই রেজওয়ান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, বিক্ষুব্ধ এলাকাবাসী একলেনে যানহন চলাচলের প্রতিবাদে সড়ক অবরোধ করে রাখে। পরে সদর উপজেলা নিবার্হী অফিসার জাহাঙ্গীর আলম ও নাটোর সড়ক বিভাগের নিবার্হী প্রকৌশলী আব্দুর রহিম ঘটনাস্থলে গিয়ে দ্রুততম সময়ের মধ্যে সড়কটির দুই লেন চালুর আশ্বাস দিলে তারা অবরোধ তুলে নেয়।

সড়ক বিভাগের নিবার্হী প্রকৌশলী আব্দুর রহিম বলেন, আগামী একমাসের মধ্যে হয়বতপুর বাজার এলাকায় দুই লেনে যানবাহন চলাচলের সব ধরনের ব্যবস্থা নেয়া হবে।