নওগাঁয় সকালে স্বাভাবিক দাফন বিকেলে প্রতিবেদন করোনা পজেটিভ, নতুন করে ১৮জন করোনায় আক্রান্ত

আব্দুর রশীদ তারেক, নওগাঁ জেলা প্রতিনিধি: নওগাঁয় করোনাভাইরাসে (কোভিড-১৯) সংক্রমিত হয়ে নতুন করে আরও একজনের মৃত্যু হয়েছে। তবে তার করোনা সংক্রমণের বিষয়টি নিশ্চিত হয়েছে লাশ দাফনের পর। দাফনও হয়েছে স্বাস্থ্যবিধি না মেনেই।

শনিবার নওগাঁর সাপাহার উপজেলার গোয়ালা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। এ নিয়ে জেলায় করোনায় আক্রান্ত হয়ে মোট আটজনের মৃত্যু হলো। মৃত ব্যক্তির নাম হারুন দফাদার (৫৫)। তিনি নওগাঁর সাপাহার উপজেলার গোয়ালা গ্রামের বাসিন্দা। করোনার উপসর্গ নিয়ে হারুন প্রথমে নওগাঁ সদর হাসপাতালে ভর্তি হয়ে চিকিৎসা গ্রহণ করেন।

তখন তার নমুনা নিয়ে পরীক্ষার জন্য পাঠানো হয়। পরে তার অবস্থার অবনতি হলে বগুড়া শহীদ জিয়া মেডিকেল হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় শুক্রবার ভোরে তিনি মারা যান। পরে শনিবার সকালে তার মরদেহ গ্রামের বাড়িতে স্বাভাবিকভাবে দাফন করা হয়। এদিকে হারুনের দাফনের পর শনিবার বিকেলে প্রতিবেদন আসে যে হারুন করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত ছিলেন।

অপরদিকে নওগাঁয় নতুন করে ১৮জনের শরীরে করোনাভাইরাস (কোভিড-১৯) শনাক্ত হয়েছে। এর মধ্যে সদর হাসপাতালের একজন নার্স এবং জেলা ও দায়রা জজ আদালতের এক অফিস সহকারীও রয়েছেন। এ নিয়ে জেলায় কোভিড শনাক্ত রোগীর সংখ্যা দাঁড়াল ৫৬০। শনিবার বিকেলে সিভিল সার্জন আকন্দ মো: আখতারুজ্জামান এ তথ্য নিশ্চিত করেন।

সিভিল সার্জন কার্যালয় সূত্রে জানা যায়, ঢাকার ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অব ল্যাবরেটরি অ্যান্ড মেডিসিন রিসার্চ ল্যাবে পরীক্ষা হওয়া নওগাঁর ১৯৭টি নমুনার ফলাফল ই-মেইলে আসে। এর মধ্যে ১৮জনের রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে। এর মধ্যে নওগাঁ জেলা ও দায়রা জজ আদালতের ১জন অফিস সহকারী এবং নওগাঁ সদর হাসপাতালের ১জন সিনিয়র স্টাফ নার্সসহ সদর উপজেলার ৭ জন, মহাদেবপুরের ৭ জন, সাপাহারের ৩ জন ও মান্দার ১জন রয়েছে।