দুর্বৃত্তদের হামলায় মৃত্যুর হাত থেকে এক সংবাদকর্মীকে রক্ষা করলেন পাংশা মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ আহসান উল্লাহ

টেলিভিশন চ্যানেল এস রাজবাড়ী জেলা প্রতিনিধি মোঃ শাহিন রেজা পারিবারিকভাবে একটি ডোন্ট জের ধরে বেশ কিছুদিন ধরে তারই আপন চাচা চাচাতো ভাই, যশাই ইউনিয়নের সমষপুর গ্রামের, হেলাল শেখ, আকবর শেখ, ওয়াজেদ শেখ, আজাদ শেখ, মান্নান শেখ, তার চাচাতো ভাই, মোঃ শাকিল, মোঃ সাঈদ, মোঃ জাহাঙ্গীর, বেশ কিছুদিন ধরে তাকে বিভিন্ন ধরনের হুমকি দিয়ে আসছে।

গত বৃহস্পতিবার ২১/০৫/২০২০ ইং তারিখে শাহিন ও তার স্ত্রী ঝগড়া হয়। ঝগড়া শেষে শাহিন রেজা নিউজ সংগ্রহের কাজে বের হলে তার স্ত্রী বাড়ি থেকে পালিয়ে তার চাচাদের বাড়িতে যে ওঠে আনুমানিক চারটার দিকে শাহীন রেজা জানতে পারে তার স্ত্রী তার চাচাদের বাড়িতে আছে।

নিউজ সংগ্রহের কাজ শেষ করে বাড়ি ফেরার পথে তার চাচাদের বাড়িতে যায় শাহিন রেজা যে দেখতে পায় বিভিন্ন এলাকা থেকে লোকজন এসে জুয়া খেলার আসর বসিয়েছে এবং সেখানে ওয়াজেদ শেখ ইয়াবা বিক্রি করছে তখন ক্যামেরার দিয়ে ফুটেজ নিতে গেলে তার ক্যামেরা কেড়ে নেয় এবং তাকে বেধড়ক মারপিট করে চিৎকার শুনে এলাকাবাসী এসে তাকে উদ্ধার করেন।

তাৎক্ষণিকভাবে পাংশা মডেল থানায় গেলে পাংশা থানা অফিসার ইনচার্জ মোঃ আহসান উল্লাহ একটি লিখিত অভিযোগ গ্রহণ করেন। পরের দিন শুক্রবার ২২/০৫/২০২০ইং তারিখে নিউজ সংগ্রহের কাজে বাসা থেকে বের হলে তাকে যশাই ইউনিয়ন এর সমষপুর থেকে তার মোটরসাইকেল থেকে নামিয়ে বাড়িতে নিয়ে যে বেথর মারপিট করেন তার চাচারাও চাচতো ভাইয়েরা এক পর্যায়ে আকবর শেখ ওয়াজ সেখ তার মাথায় আঘাত করলে বেহুশ হয়ে যায় বিষয়টি পাংশা থানা অফিসার ইনচার্জ আহসান উল্লাহ জানতে পেরে সঙ্গে সঙ্গে তার ফোর্স কে নিয়ে ঘটনাস্থলে যেয়ে তাকে উদ্ধার করে পাংশা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন। এবং ঘটনাস্থল থেকে মোহাম্মদ হেলাল শেখ কে গ্রেফতার করে থানায় নিয়ে আসে হয়েছে।