দীর্ঘ ৭৫ দিন পর বেনাপোল স্থল বন্দর দিয়ে আমদানি-রপ্তানি শুরু

 জসিম উদ্দিন, বেনাপোল প্রতিনিধি : টানা ৭৫ দিন বন্ধ থাকার পর শর্ত সাপেক্ষে আজ রবিবার বিকাল থেকে ১৪ই জুন পর্যন্ত দেশের সর্ববৃহৎ স্থল বন্দর বেনাপোলের সাথে ভারতের পেট্রাপোল স্থলবন্দরের আমদানি-রপ্তানি বাণিজ্য শুরু হয়েছে। বাংলাদেশের আমদানিকারক হিরো হুন্ডা কোম্পানী লিমিটেডের ২০ ট্রাক পণ্য আমদানির মাধ্যমে দু’দেশের মধ্যে বাণিজ্যক কার্যক্রম শুরু হয়। বাণিজ্য শুরু হওয়ার খবরে বন্দর এলাকার দু’পাশে লক্ষাধিক মানুষ যেন প্রান ফিরে পেয়েছে। রুটি-রুজি হারানোর ভয়ে দুই বন্দর এলাকায় প্রায় ২০ হাজার পরিবার সর্বদা আতংকিত ছিল।

ভারতের বারাসাতের জেলা ম্যাজিস্ট্রেট স্বাক্ষরিত এক পত্রে জানানো হয়েছে শর্ত সাপেক্ষে আগামী ১৪ জুন পর্যন্ত দু’দেশের মধ্যে আমদানি-রপ্তানি চালু থাকবে। পরবর্তীতে পরিবেশ পরিস্থিতি বিবেচনা করে পরবর্তী সীন্ধান্ত জানানো হবে। এজন্য ভারতের পেট্রাপোল বন্দরে ১শ’ জন ট্রাক চালককে প্রয়োজনীয় স্বাস্থ্য সুরক্ষা দেওয়া হয়েছে। শুধু মাত্র ওই ড্রাইভাররা পণ্যবাহী ট্রাক নিয়ে বাংলাদেশে প্রবেশ করবে। করোনার সংক্রমণ নিয়ে আশঙ্কা থাকায় সীমান্ত অতিক্রমের আগেই গাড়ি চালকদের শারীরিক অবস্থার পরীক্ষা করা হবে। এছাড়াও ট্রাকগুলো উভয় দেশে স্যানিটাইজ করা হবে। ফেরার সময়ও চালকদের শারীরিক পরীক্ষা করা হবে।

বাধ্যতামূলক ট্রাক ড্রাইভাদের পিপিই পরিধান করতে হবে। সেই সাথে দ্রুত পণ্য খালাস করে দিনে দিনে ট্রাকগুলো ফিরে যাবে। এর আগে, গত বৃহস্পতিবার বিকেলে সীমান্তের জিরো পয়েন্ট এলাকায় দুই দেশের প্রশাসন ও ব্যবসায়ী নেতাদের মাঝে বৈঠক অনুষ্টিত হয়। বৈঠকে ভারতের উত্তর ২৪ পরগনা জেলার জেলাশাসক চৈতালি চক্রবর্তী, বনগাঁ পৌর সভার মেয়র শংকর আঢ্য ডাকুসহ কাস্টমস, পুলিশ, বিএসএফ ও পেট্রাপোল সিএন্ডএফ এজেন্টস, ট্রাক মালিক সমিতি ও শ্রমিক সংগঠনের নেতারা উপস্থিত ছিলেন। অপরদিকে বাংলাদেশের পক্ষে বেনাপোল বন্দর, কাস্টমস, বিজিবি ও সিএন্ডএফ এজেন্ট এসোসিয়েশন, সিএন্ডএফ স্টাফ এসোসিয়েশন ও ট্রান্সপোর্ট মালিক সমিতির নেতারা উপস্থিত ছিলেন।

বৈঠক শেষে বেনাপোল সিএন্ডএফ এজেন্টের সভাপতি মফিজুর রহমান সজন জানান, করোনার কারণে দীর্ঘ আড়াই মাস ধরে এ বন্দর দিয়ে আমদানি-রপ্তানি বন্ধ ছিলো। করোনার ক্রান্তি সময়ে স্বাস্থ্যবিধিসহ অন্যান্য নির্দেশনা মেনে রবিবার থেকে আমদানি-রপ্তানি শুরু করতে দু‘দেশের নেতৃবৃন্দ একমত পোষণ করেছেন। আজ হিরো হুন্ডাকোম্পানী লিমিটেড ২০ ট্রাক পণ্য আমদানির মধ্যে দিয়ে ভারত থেকে পন্য আমদানি শুরু হয়েছে। পরে পরিস্থিতি দেখে ট্রাকের সংখ্যা বাড়ানো হবে। এদিকে, বেনাপোল স্থল বন্দরের উপ পরিচালক (ট্রাফিক) মামুন কবীর তরফদার জানান, ভারতীয় পেট্রাপোল বন্দর কর্তৃপক্ষের চিঠি পেয়েছি।

সমস্ত ধরনের স্বাস্থ্যবিধি মেনে দু’দেশের মধ্যে আজ রবিবার দুপুর থেকে আমদানি-রপ্তানি কার্যক্রম চালু হয়েছে। বন্দর কর্তৃপক্ষের পক্ষ থেকে সব ধরনের ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে। এছাড়া ভারতীয় চালকরা যাতে বন্দরের বাইরে যেতে না পারে সে ব্যাপারে নিরাপত্তা ব্যবস্থাও জোরদার করা হয়েছে। উল্লেখ্য, করোনাভাইরাসের কারণে গত ২২ মার্চ থেকে বেনাপোল-পেট্রাপোল স্থলবন্দর দিয়ে দু‘দেশের মধ্যে আমদানি-রপ্তানি বন্ধ হয়ে যায়।