ডুমুরিয়ার আমভিটা গ্রামের হতদরিদ্র বয়স্ক মুয়াজ্জিন আফসার গাজী মাথা গোজার ঠাই চান।

জাহাঙ্গীর আলম (মুকুল), ডুমুরিয়া খুলনা প্রতিনিধি: ডুমুরিয়া উপজেলার আমভিটা মসজিদের বিনা বেতনে মুয়াজ্জিন হিসেবে দায়িত্ব পালনকারী বয়সের ভারে নুজ্জ্ব আফসার আলী গাজি শেষ বয়সে একটু মাথা গোজার ঠাই চান। বিভিন্ন স্থানে ধর্না দিয়েও পাচ্ছেন না বয়োবৃদ্ধ এই মুয়াজ্জিন। তিনি বর্তমানে ভ্যান চালিয়ে জীবিকা নির্বাহ করছেন।

বৃদ্ধ আফসার আলী গাজী জানান, তিনি ৩৮ বছর যাবত অর্থাৎ ১৯৮২ সাল থেকে ডুমুরিয়া উপজেলার বিলডাকাতীয়া পাড়ের আমভিটা সুইজগেটের কাছে প্রতিষ্ঠিত আমভিটা জামে মসজিদে ইমামতি করছেন। তিনি সম্পূর্ণ বিনা পারিশ্রমিক ছাড়াই তিনি ঐ মসজিদে প্রতিটি ওয়াক্তের নামাজের পূর্বে আযান দেন। এর আগে মসজিদ ঝাড়ু দিয়ে পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন করে থাকেন তিনি। যদিও বর্তমানে ভ্যান চালিয়ে জীবিকা নির্বাহ করলেও আযানের সময় হলেই তিনি মসজিদে এসে আযান দিয়ে থাকেন এর কোনো ব্যাত্যয় ঘটেনি।

ডুমুরিয়া উপজেলা রংপুর ইউনিয়নের ৮ নং ওয়ার্ডের রামকৃষ্ণ পুর গ্রামের বাসিন্দা আফসার আলী গাজী। ছেলেরা যে যার মত করে পরিবার পরিজন নিয়ে বসবাস করেন। তিনি বৃদ্ধা স্ত্রী কে নিয়ে মসজিদের পাশে জনৈক হাকীম গাজির বাড়িতে ভাড়া থাকেন। আফসার আলী গাজি জীবনের শেষ প্রান্তে এসে বৃদ্ধা স্ত্রীকে নিয়ে বসবাস করতে অসহায় দরিদ্রের জন্য সরকারের দেয়া একটি ঘর পেতে চান। এজন্যে তিনি স্থানীয় জনপ্রতিনিধি ও উপজেলা নির্বাহী অফিসারের সুদৃষ্টি কামনা করেছেন।