ট্রাম্পকে অভিশংসনে সিনেটে শুনানি শুরু

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ইতিহাসে তৃতীয় প্রেসিডেন্ট হিসেবে সিনেটে ডোনাল্ড ট্রাম্পের অভিশংসন বিচারকাজ শুরু হয়েছে। শুনানির শুরুতেই বিচারের নিয়ম-বিধি নিয়ে ট্রাম্পের আইনজীবীদের সঙ্গে তর্কে জড়িয়েছেন ডেমোক্র্যাট সিনেটররা।
ক্ষমতার অপব্যবহার ও কংগ্রেসের কাজে বাধা দেয়ায় ডিসেম্বরে কংগ্রেসের নিম্নকক্ষ প্রতিনিধি পরিষদের অভিশংসিত হন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প।
নিম্নকক্ষে বিলটি পাস হওয়ায় মঙ্গলবার থেকে উচ্চকক্ষ সিনেটে শুরু হয়েছে অভিশংসন বিচারের শুনানি।
ক্ষমতার অপব্যবহার ও কংগ্রেসের কাজে বাধা দেয়ার অভিযোগে মার্কিন কংগ্রেসের নিম্নকক্ষে প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের অভিশংসন প্রস্তাবের বিলটি পাস হওয়ার পর গতকাল (মঙ্গলবার) উচ্চকক্ষ সিনেটে শুরু হয়েছে অভিশংসনের শুনানি।
শুনানিতে হোয়াইট হাউসের কাছে ক্ষমতার অপব্যবহারসহ বিভিন্ন অনৈতিক কাজের তথ্য চেয়েছে ডেমোক্র্যাটরা।
তবে কোন তথ্য না দেয়ার কথা জানিয়েছেন রিপাবলিকানরা। তাদের দাবি, ট্রাম্পের বিরুদ্ধে আনা অভিশংসন প্রস্তাব অসাংবিধানিক। সিনেটে ভোটাভুটিতে ডেমোক্র্যাট নেতা চাক শুমারের বিচারবিধি সংশোধনের নতুন প্রস্তাবও নাকচ করেছে সিনেট।
শুনানির শুরুতেই বিচারের নিয়ম বিধি নিয়ে বক্তব্য দেন সিনেটে রিপাবলিকান নেতা মিচ ম্যাককনেল। সাক্ষীদের সমন জারি ও নথির বিষয়ে যে কোনো সংশোধনের বিরোধিতা করেন তিনি।
ম্যাককনেলের বক্তব্যের বিরোধিতা করে চাক শুমার অভিযোগ করে জানান, সাক্ষী ও প্রয়োজনীয় প্রমাণ বাদে পুরো বিচার প্রক্রিয়াকেই আড়াল করা হচ্ছে। পররাষ্ট্র বিভাগ থেকে বিচারের প্রয়োজনীয় নথি প্রকাশের দাবি জানিয়েছেন তিনি।
বিতর্কের পর বিচারবিধি সংশোধনের নতুন প্রস্তাব উত্থাপন করেন চাক শুমার। ভোটাভুটিতে ৫৩-৪৭ ভোটে প্রস্তাবটি সিনেটে ব্যর্থ হয়। এদিকে, ম্যাককনেলের বিরুদ্ধে বিচার প্রক্রিয়া নস্যাৎ করার অভিযোগ করেছেন ডেমোক্র্যাট সিনেটররা।
তবে ডেমোক্র্যাট দলের নেতা অ্যাডাম শিফ জানান, রিপাবলিকানরা সত্য আড়ালের চেষ্টা করলেও তা উন্মোচিত হবেই।
অবশ্য সিনেটে অভিশংসন বিচারকাজ শুরু হলেও ফুরফুরে মেজাজে রয়েছেন ট্রাম্প।সুইজারল্যান্ডের দাভোসে বিশ্ব অর্থনৈতিক ফোরামের সম্মেলনে যোগ দিয়েছেন তিনি।