অস্থির দেশের পেঁয়াজের বাজার

কিছিুদিন আগেই বিদেশ থেকে পেঁয়াজ আসায় দাম কমেছিলো পেঁয়াজের। কিন্তু সময়ের এর ব্যবধানে আবার আগের চেহারায় ফিরে গেছে দেশীয় পেঁয়াজের বাজার। নানা উদ্যোগের পরও লাগাম টানা যায়নি পেঁয়াজের দামে।এদিকে দেশি পেঁয়াজও উঠেছে বাজারে। এরপরও দাম আবারও আড়াইশ’র কাছাকাছি। রাজধানীসহ দেশের বেশ কিছু জেলায় খুচরা বাজারে ২৪০ টাকা পর্যন্ত বিক্রি হচ্ছে পেঁয়াজ। এদিকে, দাম নিয়ন্ত্রণে রাখতে খোলা বাজারে বিক্রির পাশাপাশি বাজারে নজরদারি বাড়ানোর তাগিদ ক্ষুদ্ধ ক্রেতাদের।

সপ্তাহখানেক এর ব্যবধানে ফের দেশের পেয়াজের বাজার অস্থির হয়ে উঠেছে । দেশের বিভিন্ন জায়গায় দাম ভিন্ন। এদিকে রাজশাহীতে খুচরা বাজারে দেশি পেঁয়াজ বিক্রি হচ্ছে ২৪০ থেকে ২৫০ টাকায় ,আমদানি করা পেঁয়াজের দাম ২০০ থেকে ২১০ টাকা। পাবনাতে দেশি পেঁয়াজ খুচরায় বিক্রি হচ্ছে ২২০ থেকে ২৪০ টাকায়। নীলফামারীর বিভিন্ন উপজেলায় প্রতি কেজি পেঁয়াজ খুচরায় বিক্রি হচ্ছে ২৩০ থেকে ২৪০ টাকা। দামের এমন অস্থির ওঠানামায় ক্ষুদ্ধ ক্রেতারা।
শুধু তাই নয় রাঙ্গামাটিতে পেয়াজের দাম উঠানামায় সেখোনে পেঁয়াজ বিক্রি বন্ধ রেখেছেন দামের এমন ওঠানামায় ঝুঁকি এড়াতে বিক্রি বন্ধ রেখেছেন বিক্রেতারা ।

এদিকে দেশের তিন পার্বত্য জেলার পাশাপাশি লক্ষ্মীপুর মেহেরপুর, শেরপুর, সুনামগঞ্জ, পঞ্চগড়সহ দেশের বিভিন্ন জেলায় খোলা বাজারে মিলছে না পেঁয়াজ।

বিক্রেতাদের দাবি বাজারে পেঁয়াজের সরবরাহ স্বাভাবিক না হলে পেঁয়াজের দাম কমবে না, তবে ক্রেতারা বলছেন, বাজার মনিটরিং জোরদার করা না গেলে নিয়ন্ত্রণে আসবে না দাম।