টাঙ্গাইলে নতুন করে শুরু হয়েছে বন্যার আতঙ্ক

মোঃ রাশেদ খান মেনন (রাসেল), টাঙ্গাইল জেলা প্রতিনিধিঃ টাঙ্গাইলে যমুনাসহ সকল নদ নদীর পানি বৃদ্ধি অব্যাহত থাকায় চতুর্থ দফা বন্যাতঙ্কে ভুগছে লোকজন। ধলেশ্বরী ও বংশাই নদীর পানি বিপদসীমার উপর দিয়ে প্রবাহিত হওয়ায় বাসাইল, কালিহাতী,

টাঙ্গাইল সদর ও মির্জাপুর উপজেলার হাজার হাজার পরিবার এখনো পানিবন্দি রয়েছে। পানির নিচে রয়েছে অনেক রাস্তাঘাট। ফলে চলাচলে বেড়েছে দুর্ভোগ। খাদ্য সহায়তা না পাওয়ার অভিযোগও রয়েছে অনেক পরিবারের।

এছাড়াও যে সমস্ত এলাকায় পানি নেমে গেছে সে সমস্ত এলাকায় ঘরবাড়ি ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ায় এখনো অনেক লোকজন গৃহে ফিরতে পারেনি। বন্যায় আক্রান্ত ও ক্ষতিগ্রস্তদের বাঁধ বা উঁচু স্থানেই মানবেতর জীবনযাপন করতে হচ্ছে।

বন্যায় টাঙ্গাইলের দশটি উপজেলার কৃষি জমির ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। জেলায় ১৮ হাজার ১শত ২৪ হেক্টর জমির ধান, পাট, তিল, আখ, লেবু, শাক-সবজি, বীজতলাসহ বিভিন্ন ধরনের ফসল বন্যার পানিতে প্লাবিত অবস্থায় রয়েছে। এসব ফসল হারিয়ে কৃষকরা চরম বিপাকে অনিশ্চয়তার মাঝে জীবন যাপন করছে ।