জয় দিয়েই বছর শেষ করলো ম্যানচেস্টার সিটি ও লিভারপুল

বছরটা জয় দিয়েই শেষ করলো দুই ইংলিশ জায়ান্ট ম্যানচেস্টার সিটি এবং লিভারপুল। ইত্তিহাদে শেফিল্ড ইউনাইটেডকে ২-০ গোলে হারিয়েছে গার্দিওলা বাহিনী। এ জয়ে পয়েন্ট টেবিলের ৩য় স্থানেই রইলো সিটিজেনরা। রাতের আরেক ম্যাচে উলভারহ্যাম্পটনকে ১-০ গোলে হারিয়েছে টেবিল টপার লিভারপুল।

বছরের শেষ ম্যাচ। তার ওপর জয় না পেলে পয়েন্ট টেবিলের হিসেব থেকেও পিছিয়ে যেতে হবে অনেকটা। এই সমীকরণ মাথায় নিয়ে তাই নিজেদের মাঠে খুব একটা স্বস্তিতে ছিল না সিটিজেনরা। লিগ চ্যাম্পিয়নদের বর্তমান ফর্ম একেবারে তথৈবৈচ। হার জিতের এক মিশ্র অভিজ্ঞতায় ধুঁকছে তারা।

কিন্তু প্রতিপক্ষ শেফিল্ড ইউনাইটেড বলেই হয়তো একটু নির্ভার ছিল কেভিন ডি ব্রুইনিরা। ম্যাচের শুরুতেই তার প্রভাবটাও ছিল মারাত্মক। মাঝ মাঠের দখল নিতে গিয়ে নিজেদের স্বাভাবিক খেলাটাই ভুলে গিয়েছিল আকাশী নীল শিবির।

প্রথমার্ধে প্রতিপক্ষের গোল পোস্টে কোন শটই নিতে পারেনি আগুয়েরো-স্টার্লিংরা। উল্টো ভাগ্যের ফেরে গোল বঞ্চিত হয় অতিথিরা।

বিরতি থেকে ফিরে ভোল পালটে যায় ম্যান সিটির। আক্রমণে আসে গতি, নিখুঁত হয় পাসিং। পুরষ্কার পেতেও তাই দেরি হয়নি স্বাগতিকদের। ৫২ মিনিটেই কেভিন ডি ব্রুইনি আর সার্জিও অ্যাগুয়েরোর ঝলকে এগিয়ে যায় তারা। স্কোরশিতে নাম লেখান আর্জেন্টাইন।

এরপর থেকে আর ম্যাচে ফিরতে পারেনি শেফিল্ড। আধিপত্য ধরে রেখে আক্রমণ করে যায় সিটি। তবে, গোল পেতে অপেক্ষা করতে হয় আরও ৩০ মিনিট। ৮২ মিনিটে রিয়াদ মাহারেজের অ্যাসিস্ট থেকে দলের হয়ে দ্বিতীয় গোল করেন কেভিন ডি ব্রুইনি। জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে ম্যানচেস্টার সিটি।

এর আগে রাতে নিজেদের ম্যাচে জয় পায় লিভারপুল। অ্যানফিল্ডে উলভারহ্যাম্পটনকে ১-০ গোলে হারিয়েছে অল রেডরা। ম্যাচের শুরু থেকেই আগ্রাসী ছিল টেবিল টপাররা। ইয়ুর্গেন ক্লপের নির্ভুল কৌশলে, আক্রমণ শানায় বারবার। কিন্তু উলভসের গোলরক্ষক বাঁধা পার হতে হাপিত্যেশ ছুটে যাচ্ছিলো সালাহ-মানেদের।

অবশেষে ৪২ মিনিটে ভাঙে ডেডলক। অ্যাডাম লালানার অ্যাসিস্টে স্কোর শিটে নাম লেখান মোহাম্মদ সালাহ।এরপর বহু চেষ্টা হয়েছে মাঠে। গোল করার সুযোগ এসেছে দু দলের সামনেই। কিন্তু কাজের কাজটা করতে পারেনি কেউ। এক গোলের জয় নিয়েই পুরানো বছরকে বিদায় জানায় লিভারপুল।