জমি সংক্রান্ত বিরোধে লক্ষ্মীপুরে ভাই ভাতিজার হামলায় সাবেক সেনা সদস্য নিহত

নুরুল আমিন দুলাল ভূঁইয়া, লক্ষ্মীপুর জেলা প্রতিনিধি:  লক্ষ্মীপুরের রায়পুরে জমি নিয়ে বিরোধে ভাই-ভাতিজার হামলায় মারাত্বক আহত সাবেক সেনা সদস্য দেলোয়ার হোসেন (৭০) মারা গেছেন। গত বুধবার (২৯ জুলাই) তার মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে পুলিশ।

এর আগে মঙ্গলবার (২৮ জুলাই) গভীর রাতে চট্টগ্রাম ন্যাশনাল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় দেলোয়ার মারা যান। এব্যাপারে পুলিশ ও ভুক্তভোগী পরিবার সূত্রে জানা যায় যে, দেলোয়ার হোসেনের সঙ্গে তার ভাই এমরান হোসেনের দীর্ঘদিন ধরে জমি নিয়ে বিরোধ চলে আসছে।

ওই অবস্থায় বিরোধপূর্ণ জমির গাছ থেকে আম পাড়াকে কেন্দ্র করে উভয়ের মধ্যে সম্প্রতি ভাই এমরান ও তার ছেলে ফোরকানের সঙ্গে দেলোয়ারের এক পর্যায়ে শুরু হয় তর্কবিতর্ক । এরই মধ্যে এমরান ও ফোরকান তারা দেলোয়ারকে লাঠি ও লোহার রড দিয়ে এলোপাথাড়ি পিটিয়ে গুরুতর যখম করে। এতে দেলোয়ারের দুই হাত ও বুকে মারাত্মক ভাবে আঘাত প্রাপ্ত হন। ওই সময় তাকে সংকট অবস্থায় তাকে চট্টগ্রাম ন্যাশনাল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

ওই সময় তার অবস্হার অবনতি হলে সেখানেই তিনি চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান। ঘটনার বিষয়ে জানতে চাইলে এই প্রতিবেদককে নিহত দেলোয়ারের ছেলে সুমন হোসেন পাটওয়ারী জানান, জমি নিয়ে বিরোধের জের ধরে তার বাবাকে পিটিয়ে মারাত্মক আহত করা হয়। তিনি চিকিৎসাধীন অবস্থায় হাসপাতালে মারা গেছেন। এ ঘটনায় মামলা করা হবে।

এদিকে অভিযুক্ত এমরান ও ফোরকান পলাতক থাকায় তাদের বক্তব্য নেয়া সম্ভব হয়নি। রায়পুর থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবদুল জলিল জানান, ভাইয়ের সঙ্গে জমি নিয়ে বিরোধে মারামারির ঘটনায় আহত দেলোয়ার হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা গেছেন। তার মরদেহ বাড়িতে নিয়ে এলে উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।