চাঁদপুরের হাজীগঞ্জে করোনা উপসর্গে ২ নারী ও ১ বৃদ্ধের মৃত্যু

মোহাম্মদ বিপ্লব সরকার, চাঁদপুর প্রতিনিধি: চাঁদপুরের হাজীগঞ্জে ৩০ঘণ্টার ব্যবধানে করোনা উপসর্গ নিয়ে দুই নারী ও এক বৃদ্ধের মৃত্যু ঘটেছে। তাদের মৃত্যুর পর নমুনা সংগ্রহ করে আইইডিসিআর করোনা টেস্টের জন্য পাঠানো হয়েছে। এই ঘটনায় হাজীগঞ্জের সর্বত্র আতঙ্ক বিরাজ করছে। সর্বশেষ মৃত্যুর ঘটনা ঘটে মঙ্গলবার রাত সাড়ে ৮টায়। নিহত ওই তরুণী হাজিগঞ্জ পৌর সভার ৩নং ওয়ার্ড ধেররা পাটোয়ারী বাড়ির ফারুক পাটোয়ারীর স্ত্রী লিপি আক্তার (২০)। তিনি গত ৪/৫ দিন যাবত জ্বর, পাতলা পায়খানা ও গলা ব্যথায় ভুগছিলেন। ৩ মে সকালে তার জ্বর, পাতলা পায়খানা ও বমি হয়। পরে ৫ মে সকাল সাড়ে ১০টায় হাজীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি হয়। রাত সাড়ে ৮টার সময় হাসপাতালেই তার মৃত্যু হয়। রেখা বেগম (২৫) নামের দুই সন্তানের জননী করোনার উপসর্গ নিয়ে মারা গেছেন সোমবার দুপুরে হাজীগঞ্জের ভিআইপি হাসপাতালে ।

তিনি উপজেলার ৫নং সদর ইউনিয়নের মৈশাইদ গ্রামের বাবুল গাজীর স্ত্রী। মৃতের স্বামী বাবুল গাজী জানান, তার স্ত্রী রেখা গত ৫ দিন ধরে অসুস্থ ছিলেন। তার শরীরে প্রচুর ব্যাথা, জ্বর ও বমি হচ্ছিল। অবস্থা বেগতিক দেখে তাকে হাজীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে ভর্তি করা হয়। কিন্তু ডাক্তার সেখানেও তার অবস্থার অবনতি দেখে কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করেন। করোনার উপসর্গ নিয়ে ৫ মে (মঙ্গলবার) রাত সাড়ে ১২টার সময় নীজ বাড়িতে মৃত্যু হয় এক বৃদ্ধের। তিনি হাজীগঞ্জ সদর ইউনিয়নের উত্তর অলিপুর গ্রামের মৃত নুরুল ইসলামের ছেলে বৃদ্ধ মো. শহীদউল্যাহ (৬৫)।

তিনি গত ৪/৫ দিন ধরে জ্বর, সর্দি, গলা ব্যথায় ভুগছিলেন। ৪ মে দিবাগত রাতে তার পাতলাপায়খানা ও বমি হয়। চাঁদপুরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আফজাল হোসেন জানান, মুত্যুর ঘটনা শুনেছি। স্বাস্থ্যবিধি মেনে মৃত ব্যক্তির পরিবারের ইচ্ছা অনুযায়ী মুসলিম শরিয়াহ অনুযায়ী তার দাফন-কাফনের ব্যবস্থা করা হচ্ছে। ইতিমধ্যে চাঁদপুরের সিভিল সার্জন, ইসলামিক ফাউন্ডেশন ও দাফনের জন্য প্রস্তুতি টিমের প্রধান হযরত মাওলানা যোবায়ের আহমেদকে খবর দেওয়া হয়েছে। হাজিগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য বিভাগ করোনার উপসর্গ নিয়ে মারা দুই নারী ও এক বৃদ্ধের নমুনা সংগ্রহ করেছেন । স্বাস্থ্যবিধি মেনে মৃত ব্যক্তিদের পরিবারের ইচ্ছা অনুযায়ী মুসলিম শরিয়াহ অনুযায়ী দাফন-কাফনের ব্যবস্থা করা হয়েছে।