চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাবের সদস্যদের জন্য মাস্ক ও সুরক্ষা সামগ্রী বিতরণ

মোঃ রাশেদ, চট্টগ্রাম প্রতিনিধিঃ প্রেস ক্লাব সভাপতি আলী আব্বাসের হাতে সুরক্ষা উপকরণ তুলে দেন ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়ার ছোট ভাই ও চট্টগ্রাম ফিল্ড হাসপাতালের উদ্যোক্তা জনস্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞ ডা. বিদ্যুৎ বড়ুয়া। ক্লাবের যুগ্ম সম্পাদক নজরুল ইসলামের সঞ্চালনায় সংক্ষিপ্ত অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য দেন সাধারণ সম্পাদক ফরিদ উদ্দিন চৌধুরী। বক্তব্য দেন চট্টগ্রাম সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি মোহাম্মদ আলী, সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ শামসুল ইসলাম।

ধন্যবাদ জানান প্রেস ক্লাবের সিনিয়র সহ-সভাপতি সালাহ্উদ্দিন মো. রেজা। এ সময় সহ সভাপতি মনজুর কাদের মনজু,সাংস্কৃতিক সম্পাদক রূপম চক্রবর্তী, অর্থ সম্পাদক দেব দুলাল ভৌমিক, প্রেস ক্লাবের স্থায়ী সদস্য শতদল বড়ুয়া, সুভাষ কারণ, জাকির হোসেন লুলু, দেবপ্রসাদ দাস দেবু, আবুল হাসনাত, নুরউদ্দিন আহমদ বিশ্বজিৎ বড়ুয়া, প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন। প্রেস ক্লাব সভাপতি বলেন, চট্টগ্রামের সাংবাদিকদের প্রতি মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর দরদ আছে। তিনি মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় বিশ্বাসী এ চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাবে এসে বঙ্গবন্ধুর ম্যুরাল উদ্বোধন করেছেন। মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ সহকারী ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়া একটি সংগ্রামের নাম। চট্টগ্রামের কৃতিসন্তান হিসেবে আমরা তার কাজের জন্য গর্বিত।

এ করোনাকালে প্রধানমন্ত্রীর পক্ষে সাংবাদিকদের সুরক্ষা উপকরণ প্রদানের জন্য প্রেস ক্লাব সভাপতি ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়ার প্রতি কৃতজ্ঞতা জানান। ডা. বিদ্যুৎ বড়ুয়া বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর পক্ষে ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়া চট্টগ্রামের সাংবাদিকদের যেকোনো ধরনের সহযোগিতা অব্যাহত রাখবেন। চট্টগ্রাম ফিল্ড হাসপাতালের কথা উল্লেখ করে ডা. বিদ্যুৎ বড়ুয়া বলেন, বাংলাদেশের একজন নাগরিক হিসেবে এ বৈশ্বিক মহামারীতে অসুস্থ মানুষদের চিকিৎসা ও সাহস জোগাতে আমরা ফিল্ড হাসপাতাল নির্মাণ করেছি। ইতিমধ্যে সাংবাদিকসহ চট্টগ্রামের হাজারো করোনা আক্রান্ত ব্যক্তি এ হাসপাতালে চিকিৎসা নিয়ে সুস্থ হয়েছেন।

করোনা ভাইরাসের ভয়ে মানসিক দুশ্চিন্তা না করে শুধু মুখে মাস্ক পরা এবং ঘন ঘন সাবান দিয়ে হাত ধোয়ার ওপর গুরুত্বারোপ করে তিনি বলেন, বিশেষ প্রয়োজনে রেজিস্টার্ড চিকিৎসকের পরামর্শে ওষুধ সেবনসহ হাসপাতালে যেতে হবে। ফিল্ড হাসপাতালের রোগীদের বিশ্বমানের চিকিৎসাসেবার পাশাপাশি মানসিকভাবে চাঙা রাখার ব্যাপারে আমরা নানা উদ্যোগ নিয়েছি।