কুয়াকাটায় ট্যুর অপারেটরদের নিয়ে প্রথম ভার্চুয়াল প্রশিক্ষণ শুরু

 আনোয়ার হোসেন আনু, কলাপাড়া (পটুয়াখালী) প্রতিনিধি: করোনা আক্রান্তে গোটা দেশ যখন লকডাউনে, দেশের পর্যটন শিল্প যখন স্থবির, ঠিক তখন অন্ধকারে আলোর ঝলকানির মতো পর্যটন সংশ্লিষ্ঠদের জন্য নতুন দিগন্ত উম্মোচন করেছেন বাংলাদেশ ট্যুরিজম বোর্ড। কর্মহীন অবস্থায় থাকা ট্যুর অপারেটরদের নিয়ে এই প্রথম শুরু হয়েছে অনলাইন ভিত্তিক ভার্চুয়াল প্রশিক্ষণ। এই কর্মসূচী একদিকে যেমন ট্যুরিজমকে এগিয়ে নিতে পেশাগত দক্ষতা বৃদ্ধি পাবে, অপারদিকে কর্মহীন ট্যুর অপারেটরগন আর্থিক ভাবে লাভবান হবেন। পর্যটনমুখী ব্যবসায়ীদের এই দু:সময় এমন একটি কর্মসুচী নেয়ায় ভীষন খুশি অংশগ্রহনকারীরা ।

১৯ মে (মঙ্গলবার) বেলা ১১ টায় ট্যুর অপারেটর এসোসিয়েশন অব কুয়াকাটা ( টোয়াক) এর সদস্যদের করোনা সংকট উত্তরণ ও পেশাগত দক্ষতা বৃদ্ধিতে ২ দিন ব্যাপি অনলাইন ভার্চুয়াল প্রশিক্ষণ কর্মশালা শুরু হয়েছে। এই কর্মশালার আনুষ্ঠানিক উদ্ভোধন করেন বাংলাদেশ ট্যুরিজম বোর্ড এর প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (অতিরিক্ত সচিব) জাবেদ আহমেদ। প্রশিক্ষণ কর্মশালার সভাপতিত্ব করেন বাংলাদেশ ট্যুরিজম বোর্ড পরিচালক (যুগ্ন সচিব) আবু তাহের মোহাম্মদ জাবের।

এছাড়াও কর্মশালায় সম্পৃক্ত ছিলেন,ট্যুরিজম বোর্ট উপ-পরিচালক মোহাম্মদ সাইফল ইসলাম,সহকারী পরিচালক বোরহান উদ্দিন। কর্মশালায় প্রশিক্ষক ছিলেন ট্যুর অপারেটর এসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ ( টোয়াব) এর প্রেসিডেন্ট রাফিউজ্জামান এবং মনিরুজ্জামান মাসুম, নুরাইন শারমিন আফরোজি। এই প্রশিক্ষনে অনলাইনে কুয়াকাটার ৩০ জন ট্যুর অপারেটর অংশ নেয়। ট্যুর অপারেটর এসোসিয়েশ অব কুয়াকাটা (টোয়াক) এর সভাপতি রুমান ইমতিয়াজ তুষার জানান, এটি একটি চমৎকার উদ্যোগ। ট্যুর অপারেটররা বসে না থেকে অনন্ত ভবিষ্যতের জন্য প্রশিক্ষন নিয়ে দক্ষতা বৃদ্ধি করতে পারছে, অপরদিকে আর্থিক ভাবেও সহযোগীতা পাচ্ছে । এমন একটি কর্মসূচী হাতে নেয়ায় ধন্যবাদ জানিয়েছেন বাংলাদেশ ট্যুরিজম বোর্ড কে ।