কালীগঞ্জে অসাধু ব্যবসায়ীদের দৌরাত্ব কমাতে চলছে বাজার মনিটরিং ও মোবাইল কোর্ট

নজরুল ইসলাম, ঝিনাইদহ প্রতিনিধিঃ নিয়ন্ত্রণহীন হয়ে পড়ছে, হঠাৎ করে বাজারে পেঁয়াজের মূল্য বৃদ্ধি পাওযায় অসাধু ব্যবসায়ীদের দৌরাত্ব কমাতে চলছে বাজার মনিটরিং ও মোবাইল কোর্ট। বাজার মনিটরিং ও মোবাইল কোর্ট চলবে বলে জানিয়েছেন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও কালীগঞ্জ সহকারি কমিশনার (ভুমি) ভুপালী সরকার। বৃহস্পতি ও শুক্রবার দুদিন সকাল থেকে দুপুর পর্যন্ত নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ভুপালী সরকার সেনাবাহীনি ও পুলিশের সহযোগিতায় বাজার মনিটরিং করেন এসময় কয়েকটি কালীগঞ্জ বাজারের আড়ৎ, দোকান ও একটি বাসে জরিমানা আদায় করা হয় ।

গত বৃহস্পতিবার ৫টি আড়ৎ এ ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইন, ২০০৯ এ ১৩ হাজার টাকা জরিমানা ও শাপলা পরিবহনের একটি বসে সংক্রামক রোগ প্রতিরোধ, নিয়ন্ত্রণ ও নির্মূল আইন, ২০১৮ তে ১হাজার টাকা জরিমানা আদায় করেন। শুক্রবার কালীগঞ্জ কলেজ রোডের দু দোকানে যথাযথ ভাবে মূল্য তালিকা প্রদর্শন না করায় ১হাজার ৫শ টাকা জরিমানা করাহয়। মোট দুদিনে ৫টি আড়ৎ, ২টি দোকান ও একটি বাসে মোট ১৫ হাজার ৫শ টাকা জরিমানা করা হয়। মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করেন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ভুপালী সরকার। এসময় সেনাবাহীনির একটি টিম ও কালীগঞ্জ থানা পুলিশের একটি টিম উপস্তিত ছিলেন।

নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ভুপালী সরকার জানান, বিজ্ঞ জেলা ম্যাজিস্ট্রেট স্যারের সদয় নির্দেশনা মোতাবেক ও ইউএনও স্যারের সার্বিক তত্বাবধানে গতকাল ও আজ কালীগঞ্জ উপজেলার বিভিন্ন বাজার এলাকায় সেনাবাহীনি ও পুলিশ বাহিনীর সহায়তায় মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করে দ্রব্যমূল্যের মনিটরিং করা হয়। এসময় সরকারি আইন না মানায় কয়েটি আড়ৎ, দোকান ও একটি বাসে মোবাইল কোর্টের মাধ্যমে জরিমানা ও সতর্ক করা হয়। জনস্বার্থে অভিযান অব্যাহত থাকবে।

এক ক্রেতা জানান,ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনার পর পেঁয়াজের দাম কিছুটা কমিয়ে দেন ব্যবসায়ীরা। কিন্তু আধাঘণ্টা পর বাজার থেকে ম্যাজিস্ট্রেট চলে গেলে আবারো পেঁয়াজের দাম বেড়ে যায়।