কলাপাড়ায় দুস্থ পরিবারের শিশুরা পেল শিশু খাদ্য

 আনোয়ার হোসেন আনু কলাপাড়া (পটুয়াখালী) প্রতিনিধি: পটুয়াখালীর কলাপাড়ায় দুস্থ ও নিম্ন আয়ের পরিবারের শূন্য থেকে ৫বছর বয়সী শিশুর পরিবার পেল শিশু খাদ্য সহায়তা।  উপজেলার এসব শিশু পরিবার গুলোর কাছে শিশু খাদ্য সহায়তা পৌঁছে দেয় উপজেলা দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রান বিভাগ ও উপজেলা যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা ফেরদৌস রহমান ।
শুক্রবার দিনভর উপজেলার চাকামইয়া ইউনিয়নের নিশানবাড়িয়া আবাসনে বসবাসরত ৬০ শিশু পরিবার, পূর্ব চাকামইয়া আবাসনের ৩৬ শিশু পরিবার এবং নীলগঞ্জ আবাসনে বসবাসরত দুস্থ পরিবারের শিশুদের অভিভাবকের কাছে এসব শিশু খাদ্য সহায়তার প্যাকেট তুলে দেন।
এসময় তার সাথে উপস্থিত ছিলেন দুর্যোগ ও ত্রান মন্ত্রনালয়ের কর্মকর্তা ও কর্মচারী বৃন্দ। এর আগে দুর্যোগ ও ত্রান মন্ত্রনালয়ের বরাদ্দকৃত নগদ অর্থে শিশু খাদ্য ক্রয়ের জন্য উপজেলা পরিষদ মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান শাহিনা পারভিন সীমা, মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা তাসলিমা বেগম এবং মাধ্যমিক একাডেমিক সুপারভাইজার মনিরুজ্জামান’র সমন্বয়ে ক্রয় কমিটি করা হয়। উপজেলা দুর্যোগ ও ত্রান কর্মকর্তা তপন কুমার ঘোষ বলেন, করোনা পরিস্থিতিতে নিম্ন আয়ের পরিবারের শূন্য থেকে ৫বছর বয়সী শিশুর জন্য দুর্যোগ ও ত্রান মন্ত্রনালয় থেকে নগদ ৯৪, ৫৬০ টাকা ও ৮০০ প্যাকেট ৪০০ গ্রাম ওজনের মিল্ক ভিটা গুড়ো দুধ’র প্যাকেট বরাদ্দ পাওয়া গেছে। যা দিয়ে দুস্থ পরিবারের শিশুদের বাড়ী বাড়ী খাদ্য সহায়তা পৌঁছে দেয়া হচ্ছে।
প্রথম পর্যায় ৪০০ শিশু পরিবারকে এ সহায়তা দেয়া হচ্ছে। যা অব্যাহত থাকবে। কলাপাড়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আবু হাসনাত মোহম্মদ শহিদুল হক বলেন, ৪০০ শিশু পরিবারকে প্রাথমিক ভাবে শিশু খাদ্য সহায়তা প্রদানের জন্য বাছাই করে খাদ্য সহায়তা পৌঁছে দেয়া হচ্ছে। এ খাদ্য তালিকায় রয়েছে ৪০০ গ্রাম মিল্কভিটার গুড়া দুধ, ১ কেজি চিনি, ১ কেজি সুজি, ৫০০ গ্রাম সেমাই, ২৫০ গ্রাম সাবু, ২পিচ ট্যাং মিনি প্যাক ও ১ প্যাকেট বিস্কিট। যা পর্যায়ক্রমে উপজেলার দুস্থ শিশু পরিবারকে পৌঁছে দেয়া কবে।