করোনা উপসর্গ নিয়ে চাঁদপুর সরকারি হাসপাতালের আইসোলেশনে ৩ জনের মৃত্যু

মোহাম্মদ বিপ্লব সরকার, চাঁদপুর প্রতিনিধিঃ চাঁদপুর সরকারি জেনারেল হাসপাতালের আইসোলেসন বিভাগে গত ২৪ঘন্টায় চাঁদপুরে করোনা উপসর্গ নিয়ে ৩জনের মৃত্যু হয়েছে।

এদের মধ্যে আইসোলেশন ওয়ার্ডে ভর্তির ৫০ মিনিটের মাথায় এক ব্যক্তি মারা গেছেন। তিনি করোনার উপসর্গে ভুগছিলেন। মৃতের নাম মোস্তফা কামাল (৫৫)।হাজীগঞ্জ উপজেলার বাকিলা এলাকার সাতবাড়িয়া গ্রামের মোস্তফা কামাল করোনার উপসর্গ নিয়ে রোববার সকাল ১০টার দিকে হাসপাতালে আসেন। আইসোলেশনে ভর্তির পর সকাল ১০টা ৫০ মিনিটের সময় তিনি মারা গেছেন। তার নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে। তাকে বিশেষ ব্যবস্থায় দাফন করা হয়।

বিকেল ৩টায় হাজিগঞ্জ উপজেলার মকিমাবাদ এলাকা থেকে আব্দুল কাদের পাটওয়ারী (৬৫) নামে এক ব্যক্তি উপসর্গ নিয়ে সদর হাসপাতালের আইসোলেশনে ভর্তি হন। অক্সিজেন দেয়ার পর পরই তিনি মারা যান। ১০ মিনিট আইসোলেশনে ছিলন।

অপরদিকে চাঁদপুর সদর উপজেলার মহামায়া পশ্চিম বাজারের সজীব মেডিকেল হলের মালিক মঞ্জুর আহমেদ রাজিব (৪০) করোনার উপসর্গ নিয়ে শনিবার (৩০ মে) বিকেল ৪টায় মারা যায়।

তিনি গত কয়েকদিন যাবৎ জ্বর শদিতে আক্রান্ত হওয়ায় ২৫০ শয্যা চাঁদপুর সদর হাসপাতালের সাধারন ওয়ার্ডে ভর্তি ছিল। হঠাৎ শ্বাস কস্ট এবং ডায়াবেটিস বেড়ে যাওয়ায় কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে ঢাকা রেফার করেন। ঢাকা নেয়ার পথিমধ্যে মতলব এলাকায় তার মৃত্যু হয়। তার পৈত্রিক বাড়ি কুমিল্লার কসবা সালদা নদী এলাকায়।

তারা দুই ভাই এক বোন। তিনি মৃত্যুকালে মা, বাবা, স্ত্রী ও ২ কন্যা সন্তানকে রেখে গেছেন। তাকে বাবার এলাকায় দাফন করার জন্য কুমিল্লা নিয়ে গেছে।

এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন চাঁদপুর ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালের আরএমও ডাঃ সুজাউদ্দৌলা রুবেল।