এয়ারলাইন্স কার্যালয়ের সৌদি প্রবাসীদের ভিড়, টোকেনের ভিত্তিতে দেয়া হবে টিকিট

করোনার কারণে দেশে এসে আটকে পড়া প্রবাসীরা সৌদি আরবে ফিরতে ভোর থেকেই সৌদিয়া এয়ারলাইন্স কার্যালয়ের সামনে ভিড় করছেন। তবে, এসব যাত্রীদের অধিকাংশই টোকেনধারী। আজ ২০০ থেকে ৫০০ পর্যন্ত টোকেনধারী প্রবাসীরা এয়ারলাইন্স কার্যালয়ে এসেছেন।

আগ্রহী প্রবাসীদের মধ্যে আজ বৃহস্পতিবার ১ থেকে ৫০০ টোকেনধারী, আগামীকাল (শুক্রবার) ৫০১ থেকে ৮৫০, শনিবার ৮৫১ থেকে ১২০০ এবং ১২০১ থেকে ১৫০০ নম্বর টোকেনধারীদের টিকিট দেয়া হবে।

প্রবাসীরা বলছেন, আকামার মেয়াদ বাড়ানোয় তারা কিছুটা নিশ্চিত রয়েছেন। তবে, ভিসার মেয়াদ বাড়ানো নিয়ে এখনো অনিশ্চতায় তারা। তাদের দাবি, সিরিয়াল অনুসারে যেন আসন বরাদ্দ হয়। টিকিট যেন সিন্ডিকেটের হাতে না পড়ে, সে বিষয়ে বিশেষ নজর রাখতে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের কাছে আহ্বান জানান প্রবাসীরা।

সৌদিয়া এয়ারলাইন্স কর্তৃপক্ষ বলছে, এজেন্সির মাধ্যমে কোনো টিকিট দেয়া হবে না। সব টিকিট টোকেনের সিরিয়াল অনুযায়ী দেয়া হবে এবং ফিরতি টিকিট পরিবর্তনে কোনো টাকা লাগবে না। এছাড়া আগামী বৃহস্পতিবার থেকে নতুন টোকেন দেয়া হবে বলেও জানায় এয়ারলাইন্স কর্তৃপক্ষ। আর যারা টোকেন পাননি তাদের ২৯ সেপ্টেম্বর উপস্থিত থাকার অনুরোধ জানিয়েছে।

এদিকে, করোনায় দেশে আটকে পড়াদের আকামা বা কাজের অনুমতিপত্রের মেয়াদ ২৪ দিন বাড়িয়েছে সৌদি আরব।  রবিবার থেকে মিলবে ভিসা। একইসঙ্গে সৌদিতে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের ফ্লাইট অবতরণের অনুমতিও মিলেছে। চলতি মাসের ২৬ ও ২৭ তারিখ রিয়াদ ও জেদ্দায় যাবে দুটি বিশেষ ফ্লাইট।