এশিয়া একাদশে থাকবেনা পাকিস্তানি কোন ক্রিকেটার

বঙ্গবন্ধুর জন্মশত বার্ষিকীতে আয়োজিত টি টোয়েন্টি সিরিজে এশিয়া একাদশে থাকছেনা কোন পাকিস্তানি ক্রিকেটার। এমনটা দাবি করেছে ইন্ডিয়ান ক্রিকেট কন্ট্রোল বোর্ড-বিসিসিআই।

তাদের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জয়েশ জর্জ বার্তা সংস্থা আইএএনএসকে জানিয়েছেন, বাংলাদেশ থেকে নাকি তেমন বার্তাই পেয়েছে তারা। ঘটনার সত্যতার ইঙ্গিত দিয়েছেন বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপনও।

আগামী বছর জাতির পিতা বঙ্গবন্ধুর জন্মশত বার্ষিকী। বিসিবি তাই আয়োজন করবে এশিয়া একাদশ বনাম বিশ্ব একাদশের দুই টি টোয়েন্টি ম্যাচ।

সীমান্তে গন্ডগোল,খারাপ কূটনৈতিক সম্পর্ক সব মিলিয়ে দীর্ঘদিন দেখা মেলে না ভারত-পাকিস্তানের দ্বিপাক্ষিক সিরিজ। ক্রিকেট ফ্যানরা ভেবেছিলেন বঙ্গবন্ধু জন্মশত বার্ষিকীর আয়োজনে এশিয়া একাদশে অনন্ত একত্রে দেখা যাবে দুই দেশের ক্রকেটারদের।

বাস্তবে তেমনটার দেখা মিলবে না সাফ জানিয়ে দিয়েছেন বিসসিসিআই এর যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জয়েশ জর্জ। তিনি জানান,আমরা যেটা জানতে পেরেছি, এশিয়া একাদশে কোনো পাকিস্তানি ক্রিকেটার থাকবে না। তাই দুই দেশের ক্রিকেটারদের একত্রিত হবার বা এক দলের হয়ে খেলার কোন সম্ভাবনার প্রশ্নই আসে না। এশিয়া একাদশে ভারতের কোন ৫ ক্রিকেটার খেলবেন এটা নির্ধারণ করবেন বিসিসিআই সভাপতি সৌরভ গাঙ্গুলী।

পাকিস্তানি ক্রিকেটারদের রাখা হবে না, এমন কোনো নীতিগত সিদ্ধান্ত নাকি নেই বিসিবির। তবে,বোর্ড সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন জানান পিসিবির পক্ষ থেকেই নাকি মেলেনি সাড়া।

ভারত-পাকিস্তানের বৈরি রাজনৈতিক সম্পর্কের প্রভাব দু’দেশের ক্রিকেটে পড়েছে অনেক আগেই। এবার সেটার আঁচ পড়ছে বাংলাদেশের ক্রিকেটের গায়েও। কদিন আগেই বাংলাদেশের পাকিস্তানে টেস্ট খেলতে যেতে না চাওয়ার প্রেক্ষিতে পিসিবি প্রধান এহসান মানি বলেছিলেন, বর্তমানে ভারতের নিরাপত্তা ব্যবস্থা নাকি পাকিস্তানের চেয়েও খারাপ। অনেকেই মনে করছেন মানির এই মন্তব্যই আগুনে ঢেলেছে ঘি।