এনআরসির বিরুদ্ধে আন্দোলনে সমর্থন জানিয়েছেন মমতা

ভারতের সংশোধিত নাগরিকত্ব আইনের প্রতিবাদে সহিংসতার আশঙ্কায় উত্তর প্রদেশে জারি করা হয়েছে উচ্চ সতর্কতা। বিভিন্ন জায়গায় বন্ধ রাখা হয়েছে ইন্টারনেট সেবা।
রাজ্য সরকারের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী শুক্রবার সকাল আটটা থেকে সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত পশ্চিম-উত্তরপ্রদেশের আলিগড়, আগ্রা ফিরোজবাদসহ আট জেলায় ইন্টারনেট সেবা বন্ধ থাকবে। নতুন নাগরিকত্ব আইনের প্রতিবাদে গত এক সপ্তাহে উত্তর প্রদেশে অন্তত ২১জন মারা গেছে।
এদিকে, নাগরিকত্ব সংশোধনী আইনের প্রতিবাদে শান্তিপূর্ণ বিক্ষোভ চালিয়ে যাওয়ার রাজ্য সরকারের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী শুক্রবার সকাল ৮টা থেকে সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত পশ্চিম-উত্তরপ্রদেশের আলিগড়, আগ্রা ফিরোজবাদসহ আট জেলায় ইন্টারনেট সেবা বন্ধ থাকবে।  হুঁশিয়ারি দিয়েছেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।
সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন ও জাতীয় নাগরিকপঞ্জির বিরুদ্ধে ছাত্র শিক্ষকদের আন্দোলনের সমর্থন জানিয়েছেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জী। বৃহস্পতিবার কলকাতায় এক সমাবেশে দেয়া বক্তব্যে এমনটা জানিয়েছেন তিনি। এই আইনের বিরোধিতায় ২৯শে ডিসেম্বর ঝাড়খণ্ড ও ৩০শে ডিসেম্বর পুরুলিয়ায় সভা করবেন বলে জানান পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী।
এছাড়া কর্ণাটকে আন্দোলনের সময় নিহতদের প্রত্যেক পরিবারকে পাঁচলক্ষ টাকা আর্থিক সহায়তা দেয়ার ঘোষণা দেন মমতা।
অন্যদিকে, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ অভিযোগ করেছেন,  আন্দোলনে নামে বিরোধীরা অশান্তি সৃষ্টি করছে।