আশুগঞ্জে করোনার উপসর্গ নিয়ে যুবকের মৃত্যু, বাড়ি লক ডাউন ঘোষণা

 বাবুল সিকদার, ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা প্রতিনিধিঃ ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আশুগঞ্জে করোনাভাইরাসের উপসর্গ নিয়ে আল আমিন (২০) নামে এক যুবকের মৃত্যু হয়েছে। সোমবার (২৭ এপ্রিল) দিবাগত রাত ১১টার দিকে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। হাসপাতালে তার নমুনা সংগ্রহ করেছে। নমুনার ফলাফল পেলে তার করোনা ছিল কিনা জানা যাবে। ইতোমধ্যে তার বাড়ির আশপাশের সকল বাড়ি লক ডাউন ঘোষণা করা হয়েছে। আল আমিন উপজেলার লালপুর ইউনিয়নের চরলালপুর গ্রামের বুট্টু মিয়ার ছেলে। পেশায় সে একজন রিকশাচালক ছিলেন।

আল আমিনের চাচা মো. আলকাস মিয়া জানান, আল আমিন বেশ কিছুদিন যাবত গলায় টনসিলের সমস্যায় ভুগছিলেন। এই সমস্যা নিয়ে সে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি হয়। পরে তার জ্বর ও কাশি দেখা দেয়। এমন অবস্থায় সোমবার দিবাগত রাত ১১ টার দিকে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। তিনি আরো জানান, মৃতের জানাযা শেষে লালপুর পারিবারিক কবরস্থানে তার দাফন সম্পন্ন করা হয়েছে। আশুগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. জাবেদ মাহমুদ জানান, হাসপাতাল থেকে আল আমিনের মৃত্যুর বিষয়টি জানানো হলে পুলিশের উপস্তিতিতে তার কাফন ও দাফন সম্পন্ন করা হয়েছে। তার শরীর থেকে করোনার নমুনা সংগ্রহ করেছে হাসপাতাল কতৃপক্ষ। নমুনার পরীক্ষার ফলাফল পেলে তার করোনা ছিল কিনা জানা যাবে। ইতোমধ্যে তার বাড়ির আশপাশের সকল বাড়ি লক ডাউন ঘোষণা করা হয়েছে।