অসহায় মানুষের পাশে চরজব্বার থানার খাদ্য সামগ্রী বিতরণ

মোঃ ইমাম উদ্দিন সুমন, সুবর্ণচর, নোয়াখালী প্রতিনিধিঃ চলমান করোনা মোকাবেলায় নিজেদের জীবন বাজী রেখে কাজ করছেন

চরজব্বার থানার চৌকষ পুলিশ সদস্যরা, লকডাউনে মানুষকে ঘরে থাকতে মাইকিং, বিভিন্ন হাট-বাজারে অভিযান,

সড়কে যান চলাচল সিমিত রাখতে চেক পোস্ট বসিয়ে চলছে করোনা মোমোকাবেলায় কঠোর পরিশ্রম।

পবিত্র রমাজনেও প্রখর রৌদ্র উপক্ষা করে নিজেদের দায়ীত্ব পালনে সচেষ্ট চরজব্বার থানা পুলিশ।

মাস্ক পরা বাধ্যতা মূলক করা এবং প্রতিদিন জনসচেতনতাসহ ও নানাবিধ পরামর্শ দিয়ে যাচ্ছে দায়ীত্বরত পুলিশ

কর্মকর্তাগন। ইতি পূর্বেও একাধিক হাট বাজারে জনসাধারণের মাঝে মাস্ক বিতরণ করেছে। সুবর্ণচরে কর্মরত সাংবাদিকদের মাঝেও মাস্ক প্রদান করা হয়।

সেই সাথে চরজব্বার থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) জিয়াউল হক তরিক খন্দকার এর ব্যাক্তিগত উদ্যোগে অসহয়,

ঘরবন্ধী কর্মহীন হয়ে পড়া মানুষের ঘরে খাবার পৌঁছে দিয়ে যাচ্ছেন তিনি। কখনো তালিকা করে থানায় ডেকে

খাবার সামগ্রী তুলে দিচ্ছেন তারা, অনেক কে আবার বাড়ী বাড়ী গিয়েও খাবার পৌঁছে দেয়ার চেষ্টা চলমান রয়েছে বলে জানিয়েছেন তারা।

১৫ এপ্রিল থেকে শুরু করা হয় এই ত্রান সামগ্রী দেয়া, এই পর্যন্ত অর্ধশতাধিক পরিবারকে এই খাদ্য সামগ্রী দেয়া হয়েছে।

আরো প্রায় ৫ শতাধিক পরিবারের মাঝে এই খাদ্য সামগ্রী দেয়া হবে বলে জানিয়েছেন জিয়াউল হক তরিক খন্দকার।

তিনি বলেন, “করোনা মহামারিতে অনেক খেটে খাওয়া অসহায় দিনমজুর মানুষের মাঝে খাদ্য সামগ্রী তুলে

দেয়ার উদ্যোগ নিয়েছি। যতটুকু সম্ভব শেষ পর্যন্ত চেষ্টা অব্যাহত থাকবে, পাশাপাশি বিত্তবানরা যদি অসহায় মানুষকে

সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দেন, এই অঞ্চলের অসহায় মানুষ গুলো দুই মুঠো খেতে পারবে। করোনা মোকাবেলায় আমরা চরজব্বার থানার

পুলিশ কর্মকতাগন ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করে যাচ্ছি। মানুষের সার্বিক নিরাপত্তা ও শৃঙ্খলাবদ্ধ রাখতে আমরা বদ্ধপরিকর। তিনি সবাইকে লকডাউন মেনে চলার আহবান জানান।